ফের মোহভঙ্গ তৃণমূল ত্যাগী জেলা পরিষদ সদস্যের। আবারও পুরোনো দল তৃণমূলের ফিরতে চেয়ে আবেদন মালদা জেলা পরিষদের সদস্য ডলি রানী মন্ডলের। উল্লেখ্য, একে একে বিজেপিতে যোগ দেওয়া সদস্যরা প্রত্যাবর্তনের ইচ্ছা প্রকাশ করায় মালদা জেলা পরিষদের সংখ্যাগরিষ্ঠতার দিকে এগোচ্ছে তৃণমূল। 

আরও পড়ুন, 'ভুল সিদ্ধান্তে অন্য দলে গিয়েছিলাম- ক্ষমা করে দিন', দলে ফিরতে চেয়ে মমতাকে চিঠি সোনালির  

বিজেপি থেকে তৃণমূলে ফিরতে আগ্রহী মালডা জেলা পরিষদের সদস্য  ডলি রানী মন্ডল আবেদন পত্রে লিখেছেন,'ভুল বুঝে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলাম। আমার এই সিদ্ধান্ত চরম ভুল ছিল। আমাকে ক্ষমা করে পুনরায় দলে ফিরিয়ে মানুষের জন্য কাজ করার সুযোগ দিন।' মালদার মানিকচকের ভূতনি এলাকা থেকে জেলা পরিষদের ২৩ নম্বর আসনে তৃণমূলের টিকিটে জেতেন ডলি রানী মন্ডল। এরপর গত ৮ মার্চ মালদহ জেলা পরিষদের সভাধিপতির নেতৃত্বে কলকাতায় বিজেপির সদর দপ্তরে গিয়ে গেরুয়া শিবিরের যোগ দেন তিনি। এখন দলে ফিরতে চেয়ে আবেদন। জেলা তৃণমূল সভাপতি এবং মানিকচকের দলীয় বিধায়ককে আবেদনপত্র পাঠিয়েছেন দাবি  জেলা পরিষদ সদস্যের। বিজেপিতে যোগ দেওয়ার জন্য ক্ষমা চাইলেন জেলা পরিষদ সদস্য। এর ফলে মালদহ জেলা পরিষদে আরও বিপাকে বিজেপি। জেলা পরিষদ সদস্যকে ফিরিয়ে নেওয়া হলে সদস্য সংখ্যা বাড়বে তৃণমূলের।

আরও পড়ুন, 'খুব লজ্জাজনক', কেশপুরে BJP কর্মীদের সামাজিক বয়কট ইস্য়ুতে ধিক্কার নির্মলা-স্বপনের 

মালদা জেলা তৃণমূল সূত্রে খবর, যাঁরা দলে ফিরে আসতে চান তাঁদের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবে রাজ্য নেতৃত্ব। উল্লেখ্য, দিন কয়েক আগেই বিজেপি থেকে তৃণমূলে ফিরতে চেয়ে আবেদন জানান মালদা জেলা পরিষদের সদস্য সরলা মুর্মু। একে একে বিজেপিতে যোগ দেওয়া সদস্যরা প্রত্যাবর্তনের ইচ্ছা প্রকাশ করায় মালদা জেলা পরিষদের সংখ্যাগরিষ্ঠতার দিকে এগোচ্ছে তৃণমূল।