শুভজিৎ পুততুন্ডঃ- 'পশ্চিমবঙ্গের মানুষ ঝাড়ু দিয়ে পরিষ্কার করবে আগামী মে মাসে, প্রলাপ বকে পার্টির শেষ পেরেক পুতে দেবে এরাই'। বনগাঁতে প্রাতঃভ্রমণে এবং চা পে চর্চাতে গিয়ে তৃণমূলকে একহাত নিলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। 

 

আরও পড়ুন, 'সৌমিত্রকে ছেড়ে শাহরুখকে কেন ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর', মমতাকে খোঁচা দিলীপের

 

' আমার বাক্যবাণ ওরা হজম করতে পারছে না'


যোগদান মেলা অনুষ্ঠানকে সামনে রেখে বৃহস্পতিবার রাতেই বনগাঁ শহরের পা রেখেছেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। রাতেই দুলাল বর অভিযোগ করেছিলেন,' ভুতুড়ে সার্কিট হাউজ' বলে। কারণ সরকারি বাংলো হলেও চারিদিক অন্ধকার আলোর কোন সে রকম ব্যবস্থা ছিল না। সকালে কয়েকশো কর্মী নিয়ে বনগাঁ সার্কিট হাউস থেকে বেরিয়ে মতিগঞ্জ হয়ে বাটার মোড় হয়ে ত্রিকোণ মোড়ে শেষ হয় প্রাতঃভ্রমণ। পরবর্তীতে কর্মীদের সঙ্গে আলাপ পরিচয় এবং সাধারণ মানুষের সঙ্গে জনসংযোগ হয় স্বাধীন 'চা পে চর্চা'-র মাধ্যমে। সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে খাদ্যমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিকের করা একাধিক প্রশ্নের পাল্টা উত্তর দেন দিলীপ ঘোষ। তিনি বলেন,' আমার বাক্যবাণ ওরা হজম করতে পারছে না। সত্য বলার কেউ নেই।'

 

আরও পড়ুন, 'মন্দিরে চুম্বন নিয়ে আপত্তি হলে খাজুরাহোর গায়ে ওগুলি কী', বিজেপিকে তোপ মহুয়ার


'ঝাড়ু দিয়ে পরিষ্কার করবে পশ্চিমবঙ্গের মানুষ''

 পাশাপাশি ২০২১ এর বিধানসভা ভোটের রেজাল্ট নিয়ে বলেন,' একুশের ভোটেই দেখা যাবে'। সিউড়ির ঘটনা নিয়ে বলেন,'  বাংলাকে দূষিত করে দিয়েছেন তারা। পশ্চিমবঙ্গের মানুষ ঝাড়ু দিয়ে পরিষ্কার করবে আগামী মে মাসে'। বহিরাগত প্রসঙ্গে তিনি বলেন,' এইসব তথ্য আর কাজ হবে না বাংলার মানুষ এসব মেনে নেবে না। ' এবং কল্যান বন্দ্যোপাধ্যায়ের সম্বন্ধে তিনি বলেন,' প্রলাপ বকে উনি পার্টির শেষ পেরেকটা পুতে দেবে এরাই।'