রাজ্যে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ যত বাড়ছে ততই প্রকট হচ্ছে হাসপাতালের বেহাল পরিষেবা। করোনা লক্ষণ রোগীর অভিযোগ তাঁদের দীর্ঘ সময় ফেলে রাখায় মৃতদেহের উল্টো দিকে। যা নিয়ে আক্রান্ত ব্যক্তি রীতিমত ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। 

উত্তর ২৪ পরগনার ওই রোগীকে নদিয়ার কল্যানীর জওহরলাল নেহেরু মেমোরিয়ার হাসপাতেল স্থানান্তরিত করা হয়েছিল। বুধবার রাতে তিনি ভর্তি হয়েছিলেন। প্রথমেই তাঁকে রাখা হয়েছিল আইসোলেশন ওয়ার্ডে। আর সেই ওয়ার্ডেই গোটা একটি রাত তাঁকে কাটাতে হয়েছে মৃতদেহের সঙ্গে। আক্রান্তের অভিযোগ, তাঁর জন্য হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ যে শয্যা বরাদ্দ করেছিলেন তার উল্টোদিকের বেডেই পড়েছিল মৃতদেহ। রাতভর পড়ে থাকলেও দেহটি সরানো হয়নি বলে অভিযোগ। 


আক্রান্তের আরও অভিযোগ রয়েছে। আইসোলেশন ওয়ার্ডটি হালকা লক্ষণযুক্ত রোগীদের জন্য বলে প্রথমেই জানান হয়েছিল হাসপাতালের পক্ষ থেকে। নমুনা পরীক্ষা করার পরই আক্রান্তদের কোভিড হাসপাতালে স্থানান্তরিত করার কথা। কিন্তু তাঁর অভিযোগ তাঁর শয্যাটি একটি করোনা রোগীর ব্যবহৃত ছিল। তাই সেখানে আর ফিরে যেতে চান না তিনি। 

ডিসেম্বরে কি চিনা প্রতিষেধকে করোনা মুক্তি, অক্সফোর্ডের সঙ্গে টক্কর দিচ্ছে সিনোফার্মা ...

পাইলট ইস্যুতে সুর কি সুর নরম করলেন গেহলট, শুক্রবার সকালেই রাজস্থান আদালতের রায় ঘোষণা ..
অভিযোগ স্বীকার করে নিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। হাসপাতালের পক্ষ থেকে জানান হয়েছে খুব অল্প পরিকাঠো নিয়েই মরামারীর বিরুদ্ধে লড়াই করা হচ্ছে। সংশ্লিষ্ট কর্মীর অভাবেই মৃতদেহ মর্গে পাঠাতে বিলম্ব হতে পারে বলেও মনে করেছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। পরিস্থিতি স্বাভাবিক করার চেষ্টা করা হয়েছে বলেও জানিয়েছেন সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। নদিয়ার স্বাস্থ্য আধিকারিক পুরো বিষয়টি খতিয়ে দেখবেন বলেও জানিয়েছেন। 

৭৫ বছর পর ৫ হাজার ইহুদি হত্যার সাজা পেলেন বৃদ্ধ, নাৎসি কনসেন্ট্রেশন ক্যাম্পের শেষ বিচার ...