স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডে চড়া সুদ কেন? রাজ্য সরকারের প্রশ্নের মুখে ব্যাঙ্ক আধিকারিকরা

| Dec 04 2022, 10:33 PM IST

student credit card

সংক্ষিপ্ত

রাজ্যের মুখ্যসচিব হরিকৃষ্ণ দ্বিবেদীর সঙ্গে বৈঠক হয় রাজ্য প্রশাসনের শীর্ষ কর্তাদের। এই বৈঠকেই অতিরিক্ত সুদের হারের বিষয়টি তোলা হয়। 

স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডে ছাত্রদের কাছ থেকে অতিরিক্ত হারে সুদ নেওয়ার অভিযোগ। রাজ্য প্রশাসনের কানে এই অভিযোগ পৌঁছে যেতেই নবান্নর কড়া প্রশ্নের মুখে পড়ে গেল বিভিন্ন ব্যাঙ্ক।

রাজ্যের মুখ্যসচিব হরিকৃষ্ণ দ্বিবেদীর সঙ্গে বৈঠক হয় রাজ্য প্রশাসনের শীর্ষ কর্তাদের। এই বৈঠকেই অতিরিক্ত সুদের হারের বিষয়টি তোলা হয়। ব্যাঙ্কের সাথে সরকারের চুক্তি অনুযায়ী, স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে নেওয়া ঋণের ওপর ৪ শতাংশ হারে সুদ নেওয়া যাবে। কিন্তু ব্যাঙ্কগুলির বিরুদ্ধে বিভিন্ন ছাত্রদের তরফ থেকে অভিযোগ উঠেছে যে, এই চুক্তি ভেঙে কখনও কখনও ৯ শতাংশ হারেও সুদ চাইছে বহু ব্যাঙ্ক। অভিযোগ ওঠার পরেই একাধিক ব্যাঙ্কের আধিকারিকরা প্রশাসনের প্রশ্নের মুখে পড়ে গিয়েছেন বলে নবান্ন সূত্রে খবর।

Subscribe to get breaking news alerts

ব্যাঙ্কের আধিকারিকদের সঙ্গে হওয়া এই বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের মুখ্যসচিব। ব্যাঙ্কগুলির তরফে এই অভিযোগের বিষয়টি খতিয়ে দেখার বার্তা দেওয়া হয়। আরও অভিযোগ উঠেছে যে, স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে পড়ুয়াদের ঋণ দেওয়ার কাজটি খুবই ধীর গতিতে করা হয়। এই আবহে নবান্নর তরফে ব্যাঙ্কগুলিকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে যে, এখনও পর্যন্ত স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে ঋণের জন্য করা যতগুলি আবেদন মেটানোর কাজ আটকে রয়েছে, চলতি বছরের ৩১ ডিসেম্বরের মধ্যে সেগুলি ‘ক্লিয়ার’ করে দিতে হবে। এখনও পর্যন্ত পশ্চিমবঙ্গে ৩৭ হাজার জন্য পড়ুয়াকে স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে ঋণ দেওয়া হয়েছে বলে জানা গেছে। কিন্তু, ব্যাঙ্কগুলির পক্ষ থেকে এখনও ৪১ হাজার আবেদনের অনুমোদন দেওয়া হয়নি। নবান্নের বৈঠক থেকে এই ৪১ হাজার আবেদন নিয়ে দ্রুত পদক্ষেপ গ্রহণ করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

পশ্চিমবঙ্গ সরকারের বহু প্রকল্প এবং স্কিমের টাকা ব্যাঙ্কগুলির মাধ্যমেই প্রাপকদের কাছে পৌঁছে দেওয়া হয়। সেই স্কিমগুলির কাজকর্ম নিয়েও শুক্রবার নবান্নে পর্যালোচনা করেন রাজ্যের মুখ্যসচিব হরিকৃষ্ণ দ্বিবেদী। অভিযোগ এসেছে যে, অনেক ক্ষেত্রেই সরকারি স্কিমগুলির পরিষেবা দিতে দেরি করছে ব্যাঙ্কগুলি। উক্ত বৈঠকে সরকারের তরফ থেকে প্রশ্ন তোলা হয়, কেন পরিষেবা দিতে দেরি করছে ব্যাঙ্কগুলি? ব্যাঙ্কের মাধ্যমে স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড ছাড়াও মৎস্যজীবী ক্রেডিট কার্ড, আর্টিসান ক্রেডিট কার্ডসহ একাধিক প্রকল্পের সুযোগ সুবিধা দেওয়া হয় সরকারের তরফে। সরকারি নির্দেশের পর এবার ঋণ পাওয়া ছাত্রদের জন্য আরও সহজ হয়ে যাবে বলেই মনে করছেন রাজ্যের পড়ুয়ারা।


আরও পড়ুন-
ডিসেম্বরের মধ্যেই দেশজুড়ে সমস্ত মানুষকে বদলে ফেলতে হবে নিজের নাম, নোটিস জারি করল উত্তর কোরিয়া সরকার
একশোর ওপরেই রইল কলকাতার পেট্রোল দর, আজ জ্বালানির দাম কোন রাজ্যে কত?
শীত আসতে দেরি হলেও চলতি মরসুমের শীতলতম দিন রবিবার, জেনে নিন আজকের আবহাওয়ার খবর