তাঁর নামের পাশে রয়েছে  ৯১৬ টি আন্তর্জাতিক ম্যাচ, অনেক আগে ক্রিকেট ছেড়ে অবসর নিয়ে নিলেও এখনো বিশ্ব ক্রিকেট তার বাঁ হাতের কবজির মোচড়ে তৈরি সুইংয়ের মায়া ভোলেনি। তার সুইংয়ে মুগ্ধ হয়ে তাকে নাম দেওয়া হয়েছিল সুলতান অফ সুইং। বাঁ হাতি পেসার ওয়াসিম আক্রমকে বিশ্বের সর্বকালের সেরা একজন পেসার হিসাবে গণ্য হয়। ৫৪ বছর বয়সী প্রাক্তন ক্রিকেটার,পাকিস্তানের হয়ে ১০৪ টি টেস্টম্যাচ এবং ৩৫৬ টি ওয়ান ডে ম্যাচ খেলেছেন। বর্তমানে তিনি স্বীকার করেছেন ১৯৯৯ সালের পাকিস্তানের ভারত সফর তার জীবনের অন্যতম সফর। বিশেষ করে ওই সফরের চেন্নাই টেস্টের স্মৃতি তিনি কোনদিন ভুলবেন না বলে জানিয়েছেন। 

আরও পড়ুনঃকরোনা সঙ্গে লড়ছেন,কিন্তু সন্তানদের থেকে দূরত্ব বেদনা দিচ্ছে আফ্রিদিকে

তিনি জানিয়েছেন ভারতের বিরুদ্ধে ভালো পারফরম্যান্স করলে পাকিস্তানের ক্রিকেট ভক্তরা অনেক বেশি ভালোবাসা উপহার দেন। ভারতীয় ক্রিকেটারদের ক্ষেত্রেও পাকিস্তানের বিরুদ্ধে পারফরম্যান্স করা যে একইরকম বড় ব্যাপার সেটাও উল্লেখ করেছেন তিনি। তার সঙ্গে সঙ্গে আক্রম জানিয়েছেন ৯০ এর দশকে তারা ভারতের বিরুদ্ধে বেশিরভাগ সময়ই জিততেন। কিন্তু সাম্প্রতিক অতীতে যে ছবিটা উল্টে গেছে তাও মেনে নিয়েছেন তিনি। 

আরও পড়ুনঃকরোনাকে হারিয়ে জীবন যুদ্ধে জয়ী হলেন প্রাক্তন রঞ্জি জয়ী ক্রিকেটার

আরও পড়ুনঃনির্বাসন শেষে ফের ক্রিকেটে ফিরতে চলেছেন শ্রীসন্থ

একই সাথে আক্রম ভারতের ভরা স্টেডিয়ামে নার্ভ ধরে রেখে পারফরম্যান্স করার টোটকাও দিয়েছেন। তিনি জানিয়েছেন চাপ নিতে তিনি কোনদিন ভয় পাননি এবং কাঁধের ওপর প্রত্যাশার চাপ কে তিনি সবসময় ইতিবাচক ভাবে দেখেছেন। এখনকার দিনে অনেক তারকাদের চাপ সামলাতে ব্যার্থ হতে দেখেছেন কিন্তু তার মতে নিজের দক্ষতার ওপর বিশ্বাস থাকলেই চাপের মধ্যেও সফল হওয়া যায়।