টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ বাতিলের পরই আইপিএল আয়োজনের তোরজোর শুরু করে দিয়েছিল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। প্রাথমকিভাবে জানা গিয়েছিল ২৬ সেপ্টেম্বর শুরু হতে পারেআইপিএলের ১৩ তম মরসুম। ফাইনাল ৮ নভেম্বর। কিন্তু বোর্ড সূত্রে জানা যাচ্ছে ২৬ সেপ্টেম্বরেরও আগে শুরু হতে পারে এবারের আইপিএল। একইসঙ্গে আরব আমিরশাহিতেই বসতে চলেছে আইপিএল ২০২০-এর আসর তাও একপ্রকার নিশ্চিত। প্রতিযোগিতা ছোট করারও কোনও পরিকল্পনা নেই বিসিসিআইয়ের।

আরও পড়ুনঃঘরে বসে কমেন্ট্রি, করোনা আবহে হতে পারে আইপিএলের বড়সড় চমক

আগামী সপ্তাহেই বৈঠকে বসতে চলেছে আইপিএলের গভর্নিং কাউন্সিল।  সেখানেই স্থির হবে সংযুক্ত আরব আমিরশাহিতে ম্যাচের সূচি, ও স্থান, ক্রিকেটারদের সুরক্ষা ব্যবস্থা, বায়ো বাবলের সম্ভাবনা ও অনুশীলনের স্থান ও সম্প্রচারকারী সংস্থার সত্ত্ব ও ম্যাচের সময়। তার আগেই  বোর্ডের এক শীর্ষ কর্তা জানিয়ে দিলেন, বছর আমিরশাহিতে আইপিএল শুরু হবে ১৯ সেপ্টেম্বর। ফাইনাল ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে ৮ নভেম্বর। ৫১ দিনের উইন্ডোয় খেলা হবে টুর্নামেন্ট, যাতে সায় রয়েছে ফ্র্যাঞ্চাইজি ও ব্রডকাস্টারদের। মোট তিনটি মাঠে ম্যাচ আয়োজন করার কথা। দুবাই আন্তর্জাতিক স্টেডিয়াম, আবু ধাবির শেখ জ়ায়েদ স্টেডিয়াম ও শারজা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে।  টুর্নামেন্ট নিয়ে এখনও সরকারিভাবে সিদ্ধান্ত ঘোষণা করা না হলেও প্রস্তুতির জন্য পর্যাপ্ত সময় দিতে ফ্র্যাঞ্চাইজিদের বেসরকারিভাবে টুর্নামেন্টের দিনক্ষণ সম্পর্কে জানানো হয়েছে বলে খবর। দুবাইয়েই থাকবে প্রত্যেকটি দল। সেখানে আইসিসি-র অ্যাকাডেমিতে অনুশীলন করার অনুমতি দেওয়া হতে পারে বলেও খবর বোর্ড সূত্রে। শোনা যাচ্ছে, ২০ আগস্টের মধ্যেই আমিরশাহী পৌঁছবে দলগুলি। যাতে প্রস্তুতির জন্য অন্তত ৪ সপ্তাহ সময় পাওয়া যায়।

আরও পড়ুনঃহঠাৎ দেখা ২০০৮-এর আনকোরা বিরাটের সঙ্গে ২০২০-র 'কিং কোহলির'

আরও পড়ুনঃপাক বর্ডারের সামনে দাঁড়িয়ে সটান বুকে ভারতীয় সেনার ভাংড়া,ভিডিও শেয়ার করলেন বীরেন্দ্র সেওয়াগ

আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের চেয়ারম্যান ব্রিজেশ প্যাটেল আগেই জানিয়েছিলেন, সূচিতে কোনও কাটছাঁট হবে না। পূর্ণাঙ্গ টুর্নামেন্টেরই সাক্ষী থাকবেন ক্রিকেটপ্রেমীরা।  পাশাপাশি ব্রডকাস্টাররাও চেয়েছিল প্রতিদিন দুটির বদলে একটি করে ম্যাচ হলে তা টিআরপি ও বিজ্ঞাপনের ক্ষেত্রে বেশি লাভজনক। তাই কয়েকটি ডবল হেডার ছাড়া বেশিরভাগ দিন একটি করে ম্যাচ করার চেষ্টা চালাচ্ছে বিসিসিআই। পাশাপাশি ভারতের অস্ট্রেলিয়া সফরের কথা ভেবেও টুর্নামেন্ট এগিয়ে আনছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড।