দিন কয়েক আগের ঘটনা। পাকিস্তানের অস্ট্রেলিয়া সফরে অভিষেক হয়েছিল তরুণ ফাস্ট বোলার নাসিম শাহের। সেদিনই একটা নতুন রেকর্ড গড়েছিলেন নাসিম। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে সব থেকে কম বয়সে টেস্ট অভিষেক করার নজির গড়েছিলেন নাসিম। ক্রিকেটের রেকর্ড বুক বলছে ১৬ বছর ২৭৯ দিনের নাসিম টেস্ট ক্রিকেটে মাঠে নেমেছেন। কিন্তু এই বয়স নিয়েই এবার উঠছে প্রশ্ন। আর প্রশ্নটা তুলে দিয়েছেন পাকিস্তানের সাংবাদিক সাজ সিদ্দিক। নাসিরে অভিষেক হওয়ার পর সিদ্দিকের একটি পুরোন টুইট উঠে এসেছে আলোচনার কেন্দ্রে। সাজ সিদ্দিক সেই টুইট করেছিলেন ২০১৮ সালের ১ ডিসেম্বর। 

 

 

আরও পড়ুন - টেস্ট দল থেকে বাদ পন্থ ও শুভমান, বদলে এলেন কেএস ভারত, কিন্তু কেন

সেদিন সাজ সিদ্দিক নিজের টুইটারে লিখেছিলেন, ‘১৭ বছরের তরুণ বোলার নাসিম শাহ, যাকে পাকিস্তান সুপার লিগে কোয়েটা গ্ল্যাডিয়েটর সই করিয়েছে, তার পিঠে চোট। যদিও সে অনুশীলন করছে। আশা করা যায় পিএসএল ৪ শুরু হওয়ার আগে ও সুস্থ হয়ে উঠবে।’ এই পোস্ট দেখেই প্রশ্ন উঠছে। ক্রিকরেট মহলের মতে ২০১৮ সালে য়ার বয়েস ১৭ ছিল, ২০১৯ সালে এসে তার বয়েস ১৬ হল কী ভাবে? সাজ সিদ্দিকের টুইট নিজের ওয়ালে পোস্ট করে এই প্রশ্ন তুলেছেন প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটের মহম্মদ কাইফও। 

 

 

আরও পড়ুন - সচিন থেকে গৌতম গম্ভীর, গোলাপি ইডেনে নস্টালজিক প্রাক্তনরা

অস্ট্রেলিয়া সফরে যাওয়ার পরই একটি খারাপ খবর এসেছিল নাসিম শাহের জন্য। অস্ট্রেলিয়া পৌঁছানোর পরই মায়ের মৃত্যু সংবাদ পেয়েছিলেন নাসিম। তবে পরিবারের সঙ্গে কথা বলে পাকিস্তানে আর ফেরেননি নাসিম। জাতীয় দলের হয়ে খেলার জন্য অস্ট্রেলিয়াতেই থেকে যান। গত বৃহস্পতিবার জাতীয় দলের হয়ে অভিষেক হয় নাসিমের। খুব একটা খারাপ পারফরম্যান্সও করেননি তিনি। কিন্তু দুদিন কাটতে না কাটতেই বয়েস ভাঁড়ানোর প্রশ্ন উঠল নাসিমের বিরুদ্ধে। এর আগেও এমনটা হয়েছে পাক ক্রিকেটে। শাহিদ আফ্রিদির যখন অভিষেক হয়েছিল তখন সবাই জানতেন আফ্রিদির বয়েস ১৬ বছর। কিন্তু কিছুদিন আগে আফ্রিদি নিজেই বইতে জানিয়েছেন জাতীয় দলে অভিষেকের সময় তাঁর বয়েস ছিল ১৯ বছর। নাসিমের ক্ষেত্রেও কি এমনটাই হচ্ছে। উঠছে সেই প্রশ্নই। 

আরও পড়ুন - সৌরভ ভারতীয় ক্রিকেটের সেরা পাওনা, ইডেনে এশিয়ানেট নিউজ বাংলার মুখোমুখি ফারুক ইঞ্জিনিয়ার