ভারতীয় দলের কোচ রবি শাস্ত্রী জানিয়েছেন ধোনির জন্য আগামী আইপিএল পর্যন্ত অপেক্ষা করতে। কিন্তু বাংলাদেশে ক্রিকেট বোর্ডের যা পরিকল্পনা তাতে আইপিএলের আগেই ধোনিকে দেখা যেতে পারে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে। কারণ ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের কাছে ধোনি সহ সাত ক্রিকেটারকে ছাড়ার আবেদন করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। আগামী বছর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবর্ষ। গোটা বাংলাদেশ জুড়ে নানান অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। তাই অঙ্গ হিসেবে মার্চ মাসে হবে এশিয়া একাদশ ও বিশ্ব একাদশের দুটি প্রদর্শনী ম্যাচ। সেই ম্যাচের জন্য ধোনি ও ছয় ভারতীয় ক্রিকেটারকে পাওয়ার আবেদন জানিয়েছ বিসিবিআই। 

আরও পড়ুন - আইপিএল পর্যন্ত ধৈর্য ধরুন, ধোনি জল্পনায় জল ঢেলে বললেন রবি শাস্ত্রী

ধোনি ছাড়াও আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে, ভারতীয় দলের অধিনায়ক, বিরাট কোহলি, সহ অধিনায়ক রোহিত শর্মা, জসপ্রীত বুমরা, হার্দিক পান্ডিয়া, রবীন্দ্র জাদেজা ও ভুবনেশ্বর কুমারকে। মার্চ মাসের ১৮ তারিখ ও ২১ তারিখ হবে এই দুটি ম্যাচ। বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ামক সংস্থা আইসিসি এই দুটি টি-২০ ম্যাচকে আন্তর্জাতিক ম্যাচের তকমা দিয়েছে। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের পরিকল্পনায় যদি বিসিসিআই রাজি হয় ও সংশ্লিষ্ট ক্রিকেটাররা রাজি থাকেন তাহলে আইপিএলের আগেই মাঠে দেখা যেতে পারে ধোনিকে। 

আরও পড়ুন - পিঙ্ক বলে শতরানও শীর্ষ স্থান দিতে পারলো না বিরাটকে, স্মিথের থেকে ৩ পয়েন্ট পিছিয়ে কোহলি

ক্রিকেট মহলের আশা ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড আপত্তি করবে না। কারণটা অবশ্যই সভাপতি সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। মহারাজের অনুরোধেই পর্যাপ্ত প্রস্তুতি ছাড়াই বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড ইডেনে পিঙ্ক বল টেস্ট খেলতে রাজি হয়। এমনকি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সৌরভের অমন্ত্রণ গ্রহণ করে ইডেনে খেলা দেখতে এসেছিলেন। বাংলাদেশ ফিরে যাওয়ার আগে তিনি সৌরভের সঙ্গে আগামী বছরের এই দুটি ম্যাচ নিয়ে কথা বলেন। মহারাজ বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীকে কথা দিয়েছেন তিনি মার্চে মাসের অনুষ্ঠানে যাবেন। তাই বোর্ডের অপত্তির প্রশ্ন থাকছে না। এখন দেখার বিরাট-ধোনিরা বাংলাদেশের আমন্ত্রণে সম্মতি জানান কি না। 

আরও পড়ুন - বাবা সৌরভের থেকে কী শিখেছেন মেয়ে সানা, মজার উত্তর ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়