৮ জুলাই থেকে ইংল্যান্ডে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফিরলেও, বিশ্ব ক্রিকেটে এখনও অব্য়াহত করোনা ভাইরাসের প্রকোপ। যার জেরে এখনও বাতিল বা স্থগিত হয়ে যাচ্ছে একের পর এক আন্তর্জাতিক সিরিজ। দিন কয়েক আগেই স্থগিত হয়ে গিয়েছে নিউজিল্যান্ডের বাংলাদেশ সফর। বর্তমানে ওপার বাংলায় করোনা ভাইরাসের প্রকোপের কথা বিচার করেই সিরিজ স্থগিত রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিসিসও ও কিউই বোর্ড। এবার স্থগিত হয়ে গেল বাংলাদেশের আরও এক সিরিজ। করোনার জেরে আপাতত স্থগিত রাখা হল বাংলাদেশের শ্রীলঙ্কা সফর।

আরও পড়ুনঃপরিবার সহ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত 'অন্য সচিন'

আগামী মাসে শ্রীলঙ্কায় যাওয়ার কথা ছিল বাংলাদেশের। কিন্তু আপাতত সেই সিরিজ হবে না বলে জানাল আইসিসি। এদিন টুইটারে সেই কথা জানায় আইসিসির সরকারি হ্যান্ডেল। শ্রীলঙ্কায় তিন ম্যাচের ট্রাই সিরিজ খেলার কথা ছিল বেঙ্গল টাইগারদের। শ্রীলঙ্কায় করোনা ভাইরাসের প্রকোপ খুব একটা দেখা না গেলেও, পরিস্থিতি সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে আসেনি। অপরদিকে বাংলাদেশে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। মারণ ভাইরাসের প্রকোপ থেকে বাদ যায়নি বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা। এই পরিস্থিতিতে কোনও রকম ঝুঁকি নিতে নারাজ দুই দেশের বোর্ডই। তাই আপাতত সিরিজ স্থগিত রাখার সিদ্ধান্ত হয়েছে। পরবর্তীতে আলোচনার মাধ্যমে নির্ধারিত হবে সিরিজের নতুন দিনক্ষণ।

আরও পড়ুনঃসৌরভকে সরিয়ে কেকেআরের অধিনায়ক হয়েছিলেন গম্ভীর,সেদিন ঠিক কী বলেছিলেন শাহরুখ খান

আরও পড়ুনঃনিজের হাতেই প্যান্ট খুলে মহিলার সঙ্গে নাচ মারাদোনার,নয়া বিতর্কে 'হ্যান্ড অফ গড',দেখুন ভাইরাল ভিডিও

উল্লেখ্য, করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন বাংলাদশের প্রাক্তন অধিনায়ক তথা সাংসদ মাশরফি মোর্তাজা। এছাড়া কোভিড ১৯ এ আতক্রান্ত হয়েছেন স্পিনার নাজমুল ইসলাম ও তার পরিবার, বর্তমানে বাংলাদেশের একদিনের দলের অধিনায়ক তামিমি ইকবালের পরিবারের ৪ সদস্যও করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত। ফলে দেশের ক্রিকেটারদের মধ্যে ভাইরাসের প্রকোপ বাড়তে থাকায় উদ্বিগ্ন ও আতঙ্কিত বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের কর্তারা। পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত, কোনওরকম সিরিজ খেলতে চাইছে না বিসিবি।