২২ নভেম্বর থেকে কলকাতার ইডেন ভারতীয় ক্রিকেটের আরও একটি নতুন অধ্যায়ের সূচনা হতে চলেছে। বিসিসিআই সভাপতির সৌরভের প্রস্তাবে রাজি হয়ে ইডেনে দিন রাচের টেস্ট খেলতে রাজি হয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। সাদা পোষাকে ফ্লা লাইটের নিচে খেলা। আৰ এই দিন রাতের টেস্টের অন্যতম আকর্ষণ গোলাপী বল। ভারত-বাংলাদেশ টেস্টের জন্য এবার ৭২টি গোলাপী বলের অর্ডার দেওয়া হল ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রো বোর্ডের পক্ষ থেকে। সৌরভ আগেই জানিয়েছিলেন গোলাপী বলে খেলা হলে সেটা হবে এসজি বল দিয়েই। সেই মতই এসজি কোম্পানীর কাছে বলের অর্ডার দিয়েছে বিসিসিআই। 

আরও পড়ুন - গোলাপী বলে খেলার অভিজ্ঞতা বিরাটদের সঙ্গে ভাগ করে নিতে মুখিয়ে আছেন ঋদ্ধিমান

গত কয়েক দিন থেকেই এসজি  তৈরি লাল টেস্ট বল নিয়ে নিজের ক্ষোভের কথা জানিয়েছিলেন ভারতীয় ক্রিকেটাররা। কুকাবোরা বা ডিউক বলের তুলনায় অনেক কম সময়েই নমর হয়ে যেত এসজি বল। কিন্তু সদ্য শেষ হওয়া ভারত দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজে এসজি নিজেদের বলে অনেকটা উন্নতি করেছে। এবার তাদের সামনে নতুন চ্যালেঞ্জ এই গোলাপী বল। ক্রীড়া সরঞ্জাম প্রস্তুত কারক সংস্থার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজে যে মানের  লালা টেস্ট বল তাঁরা দিয়েছিলেন ভারত বাংলাদেশে দিন রাতের টেস্টের জন্যও সেই মানের বল তাঁরা দেবেন। সংস্থার কর্তারা জানিয়েছে, গত সপ্তাহেই বোর্ডের পক্ষ থেকে তাঁদের জানিয়ে রাখা হয়েছিল, গোলাপী বলের প্রয়োজন হতে পারে। সেই মত তাঁর তৈরি ছিলেন বলেও জানালেন এসজি’র কর্তারা। আগামী সপ্তাহের মাঝামাঝি বোর্ডের হাতে ৭২টি বল তারা তুলে দেবেন বলেই জানাচ্ছেন এসজি কর্তারা। 

আরও পড়ুন - ইডেনে প্রথম দিন রাতের টেস্ট, সমস্যা তৈরি করতে পারে ‘শিশির’

এসজি কোম্পানীর তৈরি গোলাপী বল এখনও আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে পরীক্ষিত নয়। এমনকি ভারতের ঘরোয়া ক্রিকেটেও সে ভাবে ব্যবরাহর করা হয়নি এসজির তৈরি গোলাপী বল। দলীপ ট্রফিতে তিন মরসুম কুকাবোরার তৈরি গোলাপী বল ব্যবহার করা হয়েছে। তারপর গত মরসুম থেকে গোলাপী বল ছেড়ে আবার লাল বলে ফিরে এসেছে বিসিসিআই। তাই গোলাপী বল নিয়ে কিছুটা হলেও চাপে রয়েছে এসজি। তবে সংস্থার আশা তাদের তৈরি বল ক্রিকেটারদের হতাশ করবে না। ক্রিকেট মহল মনে করছে ৭২টি গোলাপী বল এখন এসজির কাছে একটা বড় চ্যালেঞ্জ। 

আরও পড়ুন - ঐতিহ্য ও আবেগের ইডেন, এক নজরে ইতিহাসের পাতায় ক্রিকেটের নন্দন কানন

এদিকে সফল ভাবে ম্যাচ আয়োজনের জন্য চেষ্টার খামতি নেই ইডেনে। একাধিক পরিকল্পনা নিয়েছেন বংলা ক্রিকেটার কর্তারা। সিএবি সভাপতি থাকাকালীন যার অধিকাংশটা করে দিয়েছিলেন সৌরভ। এবার সেই পরিকল্পনা কাজে রূপায়ন করার পালা। ক্রীড়া জগতের নক্ষত্রদের আমন্ত্রণ জানানোর পাশাপাশি পিঙ্ক টেস্টকে স্মরণীয় কর রাখতে এই ম্যাচের টিকিও হবে গোলাপী। বল নিয়ে আকাশ থেকে ইডেনের মাঠে ডাইভ দেবেন স্কাই ডাইভাররা।