শনিবার বিজয় হাজারে ট্রফির দ্বিতীয় ম্যাচে নামতে চলেছে বাংলা। মরশুমের প্রথম ম্যাচেই হারের ধাক্কা খেতে হয়েছিল বঙ্গ ব্রিগেডকে। গত মরশুমের মতন টপ অর্ডারে সুদীপ চট্টোপাধ্যায় ও মনোজ তিওয়ারির ব্যাটিং ব্যর্থতায় প্রথম ম্যাচে হেরেছে বাংলা। এবার দ্বিতীয় ম্যাচে শনিবার সার্ভিসেসের মুখোমুখি হচ্ছে দিন্দা-সুদীপরা। দলের বোলিং উইনিট দারুণ কাজ করছে বাংলার। তবে ব্যাটিংয়ে বারবার বড় ইনিংস খেলতে ব্যর্থ হয়েছে বাংলার ব্যাটসম্যানরা। গত ম্যাচে শ্রীবতসের বড় রান ছাড়া রান করতে পারেনি কোনও ব্যাটসম্যান। ঋদ্ধিমান সাহার ওপর ভরসা করলেও, ব্যাট হাতে ব্যর্থ হন ঋদ্ধি। তবে এই ম্যাচে নিজেদের সব ব্যর্থতা ভুলে জয়ের জন্য ঝাঁপাতে চায় বাংলা দল।

আরও পড়ুন, টি২০ বিশ্বকাপে ভারতীয় দলের ৪ নম্বরকে ভরসা দিতে চাইছেন রায়না .

প্রথম ম্যাচের মতন দ্বিতীয় ম্যাচেও পাওয়া যাবে না বাংলার নতুন মরশুমের অধিনায়ক অভিমন্যু ঈশ্বরণকে। দ্বিতীয় ম্যাচেও অধিনায়কত্ব করবেন সুদীপ। তবে অভিমন্যুর না থাকাটা দলের ব্যাটিংয়ের জন্য একাট নেগেটিভ পয়েন্ট। গত ম্যাচেও ব্যাট হাতে দলের হয়ে হাল ধরতে পারেননি কোনও ব্যাটসম্যান। পাশাপাশি এই ম্যাচেও নেই তিনি। তবে গুজরাতের বিরুদ্ধে হারের ধাক্কা ভুলে এবার জয়ের জন্যই ঝাঁপাতে চাইছেন বাংলা দল।

আরও পড়ুন, দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে বিরাটদের প্রথম পছন্দ ঋদ্ধি, বুমরার চোট নিয়ে তাড়াহুড়ো চায় না টিম ম্যানেজমে.

গত ম্যাচের মতন এই ম্যাচেও দলের কম্বিনেশন অনেকটা এক থাকবে বলেই মনা করা হচ্ছে বাংলার। সার্ভিসেসের সঙ্গে মরশুমের প্রথম ম্যাচ জেতার আশায় আছে বাংলা দল। তবে কতটা কার্যকরি ভাবে এই ম্যাচে ব্যাটিং করতে দেখা যাবে সেটাই এখন দেখার। বল হাতে গত ম্যাচে ভালো বোলিং করেছিলেন বাংলার অশোক দিন্দা সহ সায়ন ঘোষ, আকাশদীপ ও অর্ণব নন্দীরা। মরশুমের প্রস্তুতি দলের ভালো হলেও প্রথম ম্যাচে ব্যাট হাতে কিছুটা পিছিয়ে পড়েছিল বাংলা দল। তবে সব ভুলেই দ্বিতীয় ম্যাচ থেকে নিজেদের ফের জয়ে ফেরাতে চায় বাংলা দল।

আরও পড়ুন, কনফ্লিক্ট অব ইন্টারেস্ট, রাহুলের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ খারিজ করতে চলেছেন এথিক্স অফিসার,সুত্রের খবর তেম.

অপরদিকে, বিজয় হাজারেতে পিছিয়ে গেল বহু সংখ্যক ম্যাচ। প্রথম তিন দিনের মধ্যে বিজয় হাজারে ট্রফিতে ইতিমধ্যে ভেস্তে গিয়েছে একাধিক ম্যাচ। ৩০টি ম্যাচের মধ্যে ১৭টি ম্যাচ ভেস্তে গিয়েছ বৃষ্টির কারণে। এবার সেই ম্যাচগুলোকে পিছানোর কথা জানানো হল বিসিসিআইর তরফ থেকে। বেঙ্গালুরু, দেহরাদুন, জয়পুর ও ভদোদারায় চলছে এই বছরের বিজয় হাজারে ট্রফি। তবে সব থেকে বৃষ্টিতে পিছিয়ে গিয়েছে বেঙ্গালুরু ও বদোদারার একাধিক ম্যাচগুলো।