ভারতীয় টেস্ট দল হোক বা সীমিত ওভারের দল। চোটের জন্য যে দুই তারকা বাইরে আছেন সেটা কোথাও যেন বোঝাই যাচ্ছে না। টিম ইন্ডিয়ার এক নম্বর অল রাউন্ডার হার্দিক পাণ্ডিয়া হোন বা দলের এক নম্বর পেস বোলার জসপ্রীত বুমরা। দুই তারকার অভাবটা বোধই হচ্ছে না। চোটের জন্য বুমরাকে অস্ত্র পচার করাতে না হলেও ব্যাক অপারেশন হয়েছে হার্দিকের। এখন অনেকটাই সুস্থ তিনি। ধীরে ধীরে শুরু করেছেন ট্রেনিং। আবার জাতীয় দলে জার্সির দিকে তাকিয়ে আছেন তিনি। বুধবার নিজের ট্রেনিংয়ের একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টে পোস্ট করেছেন হার্দিক পাণ্ডিয়া। লিখেছেন প্রতিদিন শক্তিশালী হয়ে উঠছি। 

 

 

আরও পড়ুন - পৃথ্বীর ব্যাটে প্রথম ডাবল সেঞ্চুরি, জাতীয় দলে ফেরার দাবি তরুণ ব্যাটসম্যানের

এক সংবাদ সংস্থাকে দেওয়া ইন্টারভিউতে হার্দিক জানিয়েছেন তিনি নিউজিল্যান্ড সফরের দিকেই ফোকাস করছেন। জানুয়ারি মাসে কেন উইলিয়ামসনদের দেশে উড়ে যাবে ভারতীয় দল। সেখানে পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খলবেন বিরাটরা। সেই সিরিজে জাতীয় দলে ফিরি আসাই লক্ষ্য ভারতীয় অল রাউন্ডারের। তবে প্রথম দিকে তাঁকে পাওয়া নিয়ে একটাস সংশয় আছে। তাই অনেকেই মনে করছে সিরিজের মাঝপথে হার্দিককে উড়িয়ে নিয়ে যাওয়া হতে পারে। তবে দল যদি রাজি থাকে তাহলেই। আর সেটা না হলে আইপিএলে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে মাঠে নেমে নিজের ফিটনেসের প্রমাণ দিতে চাইছেন হার্দিক। আগামী বছর টি-২০ বিশ্বকাপ। মূল ফোকাসটা সেই দিকেই। 

আরও পড়ুন - একদিনের সিরিজেও নেই ধাওয়ান, ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে সুযোগ পেলেন মায়াঙ্ক

ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্ট যদিও দলের দুই গুরুত্বপূর্ণ ক্রিকেটারকে নিয়ে কোনও রকম ঝুঁকি নিতে রাজি নয়। জসপ্রীত বুমরা হোন বা হার্দিক পাণ্ডিয়া, বিরাট কোহলি-রবি শাস্ত্রীরা জানিয়ে দিয়েছেন সম্পুর্ণ ফিট হওয়ার পরই দুই ক্রিকেটারকে দলে নেবেন তারা। কিন্তু দুই ক্রিকেটারার ওপর একটু হলেও যে চাপ বাড়ছে। একদিনে উমেশ যেমন টেস্ট ক্রিকেট বুমরার জায়গায় দলে এসে নিজের সেরাটা দিতে পেরেছেন সেতনই সীমিত ওভারের ক্রিকেটে হার্দিকের ওপর চাপ তৈরি করেছে শিবম দুবের খেলা। তাই মাঠে ফিরে আসতে মরিয়া দুই ক্রিকেটারই। 

আরও পড়ুন - কল্যাণীতে আইলিগে প্রথম জয় মোহনবাগানের, শিল্টন পালকে বিয়ের উপহার দিল দল