একটি ক্রীড়া সরঞ্জাম প্রস্তুতকারী সংস্থার বিজ্ঞাপন মাত্র। কিন্তু তা নাড়িয়ে দিয়েছে গোটা নেট দুনিয়াকে। কারণ নিছক এক বিজ্ঞাপন হলেও, তার মধ্যে রয়েছে বর্তমান ক্রীড়া বিশ্বের আসল প্রতিচ্ছবিটা। বিশ্বের প্রত্যেকটি স্পোর্টসম্যানের মনের কথাই যেন বলা হয়েছে বাজ্ঞাপনটির মাধ্যমে। যতই মহামারী আসু আর যাই আসুক ক্রীড়া বিশ্বকে তা পুরোপুরি স্তব্ধ করতে কোনও দিনও পারবে না। সাময়িক বাধা আসলেও, সেই বাধা যে ক্রীড়া ব্যক্তিত্বদের আটকে রাখতে পারবে না সেচাই বোজানো হয়েছে ক্রীড়া সরঞ্জাম প্রস্তুতকারক সংস্থা নাইকির ১ মিনিট ৩০ সেকেন্ডের ‘ইউ কান্ট স্টপ আস' শীর্ষক ভিডিওটিতে।

আরও পড়ুনঃ২০১২ এশিয়া কাপে বিরাট কোহলির পাক বধকেই সেরা বললেন গৌতম গম্ভীর

গত মার্চ মাস থেকে করোনা ভাইরাস মহামারীর জন্য থমকে গিয়েছিল গোটা ক্রীড়া বিশ্ব। এখনও পুরোপরি স্বাভাবিক ছন্দে না ফিরলে, ধীরে ধীরে বিস্ব জুড়ে ফিরতে শুরু করেছে সব ধরনের খেলা। এই পরিস্থিতি নাইকি একটি ভিডিও তৈরি করে যার নাম দেওয়া হয় ‘ইউ কান্ট স্টপ আস'। । যে সব দল এবং ব্যক্তিগতভাবে যে সব ক্রীড়া ব্যক্তিত্বকে স্পনসর করে সংস্থাটি, তাঁদের খেলার পুরনো কিছু ভিডিও ক্লিপস একসঙ্গে মিশিয়ে অসাধারণভাবে এডিট করা হয়েছে। পাশাপাশি দু'টি ফ্রেমে এমন নিখুঁতভাবে দু'টি আলাদা ভিডিওকে মেশানো হয়েছে, যাতে মনে হচ্ছে বুঝি একটিই ফ্রেম রয়েছে স্ক্রিনে।ভিডিওটিরল আবেগ প্রত্যেকটি ক্রীড়া প্রেমি মানুষের মনকে নাড়িয়ে দেবে। দেড় মিনিটের ভিডিও ইতিমধ্যই ভাইরাল হয়ে উঠেছে নেট দুনিয়ায়। তিন দিনের মধ্যে শুধু টুইটারেই আড়াই কোটি মানুষ দেখেছেন ভিডিওটি। 

আরও পড়ুনঃএকের পর এক বিশাল ছক্কা হাঁকাচ্ছেন শিখর ধওয়ান, আইপিএলের প্রস্তুতিতে গব্বর

আরও পড়ুনঃধোনির সেরা সময় অতীত,নতুনদের জায়গা ছেড়ে দেওয়াই সঠিক সিদ্ধান্ত,মন্তব্য প্রাক্তন বিশ্বকাপ জয়ীর

আরও একটি উল্লেখযোগ্য বিষয় হল ভিডিওটিতে রয়েছে ভারতীয় মহিলা ক্রিকেট দলের ক্লিপিংসও।  ২৪টি খেলার ৫৩ জন অ্যাথলিটকে দেখানো হয়েছে ভিডিওয়। যাঁদের মধ্যে রয়েছেন নাওমি ওসাকা, লিবর্ন জেমস, রাফায়েল নাদাল, ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো, সেরেনা, ভেনাস প্রমুখ। ইতিমধ্যেই ভিডিওটি সর্বকালের সেরা স্পোর্টস কমার্সিয়ালের তকমা দিয়েছে নেটিজেনরা। ভিডিওটির মাধ্যমে বার্তা দেওয়া হয়েছে কোনও কিছুই আমাদের আটকে রাখতে পারবে না। কোনও কিছুই থামাতে পারবে না স্পোর্টসকে। ভিডিওটি দেখে সত্যিই মনে হবে কোনও কিছুই আটকে রাখতে পারবে না খেলাধুলোকে। জয় মানবজাতিরই হবে।