করোনা ভাইরাসের সঙ্গে যুদ্ধে নেমেছে ভারত। মারণ ভাইরাসকে পরাজিত করতে দেশ জুড়ে ২১ দিনের লকডাউন ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।  প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণার পরও অনেক মানুষ রাস্তায় বেরোচ্ছেন, যা দেশের ভবিষ্যতের পক্ষে খুবই বিপদজনক। মানুষের সচেতনতা বৃদ্ধিতে এগিয়ে আসছেন সমাজের বিভিন্ন ক্ষেত্রের বিশিষ্টরা। এবার প্রধানমন্ত্রীর লকডাউনের সমর্থনে ও মানুষের সচেতনতা বৃদ্ধির জন্য ভিডিও বার্তা দিলেন মাস্টার ব্লাস্টার সচিন তেন্ডুলকর। করোনা মোকাবিলায় এর আগেও একাধিকবার সচেতনতার বার্তা দিয়েছেন লিটল মাস্টর।

আরও পড়ুনঃগৃহবন্দি অবস্থায় এ কী করছেন ভারতীয় দলের ওপেনার শিখর ধাওয়ান,ভাইরাল ভিডিও

আরও পড়ুনঃকরোনা মোকাবিলায় অর্ধেক বেতন দেওয়ার সিদ্ধান্ত বাংলাদেশি ক্রিকেটারদের

শচিন তেন্ডুলকর নিজের ভিডিও বার্তায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির লকডাউনের সিদ্ধান্তের সঙ্গে ঐক্যমত হয়েছেন ৷ পাশাপাশি দেশবাসীর কাছে লকডাউন সফল করার জন্য আবেদন জানিয়েছেন ৷ নিজের পোস্ট করা ভিডিওতে তিনি বলেছেন গত দশদিন ধরে কোনও বন্ধুবান্ধব কোনও আত্মীয়ের সঙ্গে তিনি দেখা করেননি, আর আগামী ২১ দিনেও তিনি বা তাঁর পরিবারের কেউ কারও সঙ্গে মেলামেশা করবে না বলে জানিয়েছেন ৷মাস্টারব্লাস্টার আরও বলেছেন সারা পৃথিবী এই করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়ছে ৷ একমাত্র মানুষই পারে এই লড়াই জিততে , তাই সব ভারতীয়কে জোটবদ্ধ হয়ে এই করোনার থেকে মুক্ত হওয়ার কথা বলেছেন তিনি ৷ আর এই লড়াইতে জয়ের একমাত্র পথ শুধুমাত্র ঘর থেকে না বেরোনো৷

 

 

শুধু সচিন তেন্ডুলকর নন, এর আগে ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলিও একাধিক ভিডিও বার্তায় প্রধানমন্ত্রীর ঘোষিত জনতা কার্ফু ও ২১ লকডাউনকে সমর্থন করেছেন। সচিনও এর আগে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সেফ হ্যান্ড চেলেঞ্জ গ্রহণ করেও নিজের হাত পরিষ্কারের ভিডিও দিয়ছিলেন, সাধারণ মানুষকে সচেতন করতে। উল্লেখ্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি সারা দেশে ২১ দিনের লকডাউনের ঘোষণা করেছেন ৷ করোনা ভাইরাসের মারণ প্রকোপ রুখতে দেশে এক বেনজির পরিস্থিতি ৷ লকডাউন, সোশ্যাল ডিস্টেন্সিংয়ের মতো একাধিক শব্দ বারবার জোর দিয়ে বোঝানোর চেষ্টা করছেন সকলেই ৷

আরও পড়ুনঃ২১ দিনের লকডাউনকে সমর্থন, সোশাল মিডিয়ায় ভিডিও বার্তা বিরাট-অনুষ্কার