যে সোশ্যাল মিডিয়ায় সত্যি কথা তুলে ধরা যায় না, সেই মিডিয়া বন্ধ করে দেওয়া উচিত, বলে দাবি করেন কঙ্গনা রানওয়াত। রঙ্গোলির মন্তব্যকে বিকৃত করা হয়েছে। ভিডিও বার্তা দিয়ে সাফ জানিয়ে দিলেন বলিউড কুইন। বর্তমানে রঙ্গোলির টুইটার অ্যাকাউন্ট বন্ধ রাখা হয়েছে। কয়েকদিন আগেই দেশের পরিস্থিতির দিকে নজর দিয়ে রঙ্গোলি বলেছিলেন, যাঁরা ডাক্তার ও পুলিষশদের আক্রমণ করছেন তাদের গুলি করে মেরে ফেলা উচিৎ। 

আরও পড়ুনঃ মহিলা পুলিশের পাশের এবার বলিউড, মিশন সুরক্ষা প্রকল্পে এবার হাজির ভ্যানিটি ভ্যান

এঅই মন্তব্যের পরই বিতর্কের ঝড় ওঠে নেট দুনিয়ায়। সকলেই সরব হন। তবে তারই মাঝে বেফাঁস মন্তব্য করে বসেন ফারহা খান আলি। তাঁদের মতে মুসলমান মানেই সন্ত্রাস, এমনটাই বোঝাতে চেয়েছিলেন রঙ্গোলি। যদিও রঙ্গোলির উক্তিতে তেমন কোনও উল্লেখই ছিল না। কোনও জাতিকেই তিনি তোপের শিকার করেননি। তবুও বন্ধ করা হয়েছে তাঁর টুইটার অ্যাকাউন্ট। 

আরও পড়ুনঃ"আমার যে সব দিতে হবে", গৃহকর্তৃদের নিবেদনে জ্যাসমিনের এই বিশেষ ভিডিও

 

 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

address the controversy around #RangoliChandel's tweet, and why freedom of speech is important in a democracy.

A post shared by Kangana Ranaut (@team_kangana_ranaut) on Apr 18, 2020 at 1:35am PDT

 

এই পরিস্থিতিতেই এবার নেট দুনিয়ায় সরব হলেন কঙ্গনা রানওয়াত। সাফ জানিয়ে দিলেন তিনি, এমন কোনও কথাই বলেননি রঙ্গোলি। যদি বলে থাকেন, তবে প্রকাশ্যে সকলের সামনে তাঁরা ক্ষমা চাইবেন। তবে দেশের এমন পরিস্থিতিতে যে সোশ্যাল অ্যাকাউন্ট বাস্তব তুলে ধরতে দিতে নারাজ, তাকে বন্ধ করা হোক এখনই। এমনটাই দাবি জানালেন এবার কঙ্গনা। দেশের নিজেস্ব কোনও প্ল্যাটফর্ম খোলা উচিৎ। তবে টুইটারে নয়, ইন্সাটগ্রামের মাধ্যমে এই বার্তা পৌঁচ্ছে দিলেন কঙ্গনা রানওয়াত। 

করোনা মোকাবিলায় রক্ষা করুন নিজেকে, মেনে চলুন 'হু' এর পরামর্শ

সাবধান, করোনা আতঙ্কের মধ্যে এই কাজ করলেই হতে পারে জেল

কী করে করোনার হাত থেকে রক্ষা করবেন আপনার বাড়ির বয়স্ক সদস্যদের, রইল তারই টিপস

শরীরে কীভাবে থাবা বসায় করোনা, জানালেন বিশেষজ্ঞরা