দেশ জুড়ে ক্রমশ বাড়ছে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। গোটা দেশে ইতিমধ্যেই আক্রান্তের সংখ্যা ১৬০০ ছাড়িয়েছে। মৃত্যু হয়েছে ৪৫ জনের। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে দশ জুড়ে ২১ দিনের লকডাউনের ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। একইসঙ্গে করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির পিএম-কেয়ার্স ফান্ড গড়েছেন। ফান্ডে দেশের বিভিন্ন ক্ষেত্রের বিশিষ্ট ব্যক্তিত্বরা তাদের যথাসাধ্য অনুদান দিচ্ছেন। এগিয়ে এসেছেন একাধিক ক্রীড়া ব্যক্তিত্বও। এবার করোনা মোকবিলায় প্রধানমন্ত্রীর কেয়ার্স ফান্ডে অনুদান দিল সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশন অর্থাৎ এআইএফএফ। 

আরও পড়ুনঃঅজস্র কেএল রাহুলের মধ্যে থেকে খুঁজে বার করুন বিরাট কোহলিকে, আইসিসির নয়া চ্যালেঞ্জ

করোনা মোকাবিলায় এবার বেলুরমঠে ২ হাজার কেজি চাল দিলেন সৌরভ

বুধবার ভারতীয় ফুটবল দলের সোশাল নেটওয়ার্কিং সাইট ট্যুইটারে অনুদানের কথা ঘোষণা করা হয়। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির পিএম-কেয়ার্স  তহবিলে ২৫ লক্ষ টাকা অনুদান দিল ফেডারেশন। প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, 'কোভিড ১৯-এর ফলে সৃষ্ট এই মহামারীর সময় সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর পিএম কেয়ার্স ফান্ডে ২৫ লক্ষ টাকা অনুদান তুলে দিল'। করোনার বিরুদ্ধে লড়তে কেন্দ্রের পাশে দাঁড়িয়ে  সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের প্রেসিডেন্ট প্রফুল প্যাটেল বলেন, “সর্বদা গোটা দেশের ভালবাসা আর সমর্থন পেয়েছি। যা আমাদের এগিয়ে যেতে উৎসাহ দিয়েছে। এবার নিজেদের সাধ্যমতো দেশবাসীকে সেই মূল্য চোকানোর পালা আমাদের। এই পরিস্থিতি মোকাবিলায় আমাদের পরস্পরের পাশে দাঁড়াতে হবে।”  প্রয়োজনে ফের কেন্দ্রীয় সরকারের পাশে দাঁড়ানোর আশ্বাস দেওয়া হয়েছে এআইএফএফ-এর পক্ষ থেকে।

 

 

করোনা মোকাবিলায় একাধিক সচেতনতামূল পদক্ষেপও নিয়েছে সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশন। নিজেদের সমস্ত ধরনের স্পোর্টিং ইভেন্ট বন্ধ করেছে এআইএফএফ। গত মাসেই নিজেদের সদর দফতর বন্ধ করে কর্মীদের বাড়ি থেকে কাজ করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। দেশের এই বিপদের সময় সকলকে এক হয়ে করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াইেয় কথাও বলা হয়েছে সর্ব ভারতীয় ফুটবল সংস্থার তরফে।

আরও পড়ুনঃকরোনা মোকাবিলায় অভিনব উদ্যোগ,বিশ্বকাপ ফাইনালের জার্সি নিলামে তুললেন জস বাটলার