করোনা ভাইরাসের জেরে স্তব্ধ গোটা ক্রীড়া বিশ্ব। ফুটবল, ক্রিকেট থেকে শুরু করে বিশ্ব জুড়ে বন্ধ সমস্ত স্পোর্টিং ইভেন্ট। ফুটবল লিগ শুরু করার উদ্যোগ নিয়েছে ইতালির সিরি এ ও ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ কর্তৃপক্ষ। ফের সবুজ গালিচায় বল গড়ানোর অপেক্ষায়  হাহুতাশ করছে সকলে। কিন্তু সবকিছুই নির্ভর করছে করোনা মহামারীর পরিস্থিতির উপর। লিগ শুরু করার ক্ষেত্রেও পরিস্থিতি খতিয়ে দেখিয়েই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওযার কথা বলা হয়েছে সিরি এ ও প্রিমিয়ার লিগ কর্তৃপক্ষের তরফ থেকে। কিন্তু এই সব কিছুর তোয়াক্কা না করেই ফুটবল লিগ শুরু হয়ে গেল তুর্কমেনিস্তানে। তাও আবার দর্শক পূর্ণ স্টেডিয়ামে। গোটা বিশ্ব যখন করোনার থাবায় বিধ্বস্ত, তখন সে দেশে রবিবার শুরু হল ফুটবল মরশুম।

আরও পড়ুনঃকরোনা মহামারীর জেরে পিছিয়ে গেল বিশ্বকাপের যোগ্যতা অর্জন পর্বের খেলা

মার্চ মাসে করোনা ভাইরাসের প্রকোপ বিশ্ব জুড়ে বাড়ার পরই তর্কমেনিস্তানেও  মস্ত ম্যাচ স্থগিত করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল। স্বাস্থ্যমন্ত্রক ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরামর্শ মেনেই ফুটবল স্থগিতের সিদ্ধান্ত নেয় জাতীয় ফুটবল ফেডারেশন। বেশ কিছুদিনের জন্য স্তব্ধ হয়ে যায় স্বাভাবিক জীবনযাত্রা। কিন্তু দুনিয়ার মুষ্টিমেয় কিছু দেশের মতো তাদের দেশেও করোনার ছায়া পড়েনি। একজনও করোনায় আক্রান্ত হয়নি বলেই খবর। দেশে কোভিড দাঁত বসাতে না পারায় ছন্দে ফেরার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। রবিবার রাজধানী আশগাবাতের স্টেডিয়ামে মুখোমুখি হয়েছিল অ্যালটিন অ্যাসির ও কোপেটড্যাগ। ম্যাচ দেখতে হাজির হয়েছিলেন প্রায় তিনশো দর্শক। ১-১ ড্র দিয়ে শেষ হয় খেলা।

আরও পড়ুনঃরোনাল্ডো কোনও দিনই মেসির উচ্চতার ফুটবলার নন,জানালেন ডেভিড বেকহ্যাম

আরও পড়ুনঃলকডাউনে নিজেই কাটলেন নিজের চুল,সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল মাস্টার ব্লাস্টারের ছবি

শুধু এখানেই শেষ নয়। আরও ভয়ঙ্কর দিক হল দর্শকদের কেউই মুখে মাস্ক পরেননি। তাঁদের বিশ্বাস, তুর্কমেনিস্তানে করোনা ঢুকতে পারবে না। তাই আগামিদিনেও নির্ভয়ে খেলা দেখার পরিকল্পনা রয়েছে তাঁদের। কিন্তু গোটা বিশ্ব জুড়ে যেখানে মৃত্যু মিছিল  চলছে সখানে তুর্কমেনিস্তানে ফুটবল শুরু নিয়ে উঠতে শুরু করেছে প্রশ্ন। সেদেশে এখনও করোনায় কেউ আক্রান্ত না হলেও, বিশ্ব স্বাস্থ্য গোটা পৃথিবীকে সচেতন থাকার নির্দেশ দিয়েছে। তারপরও কীভাবে তুর্কমেনিস্তান প্রশাসন ফুটবল শুরু করল তা নিয়ে প্রশ্ন থেকেই যাচ্ছে।