ফিফা বিশ্বকাপ কোয়ালিফায়ারের ম্যাচে কলকাতার যুবভারতীয় ক্রীড়াঙ্গনে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ড্র করেছে ভারতীয় দল। তবুও সুনীলদের পারফরম্যান্সে খুব একটা ক্ষামতি ছিল না এই ম্যাচে। অপরদিকে হাউসফুল যুবভারতীও ভাসছিল উন্মাদনায়। ব্লু টাইগার্সদের সমর্থন করতে ভর্তি ছিল যুবভারতী। আর সেই ভরা যুবভারতীতেই ফের একবার সুনীলদের ম্যাচ হোক চাইছেন ভারতীয় দলের কোচ আইগর স্টিমাচ। ভারতীয় সমর্থকদের যুবভারতীতে দেখে এক কথায় আপ্লুত হয়ে পরেছিলেন ভারতীয় দলের কোচ। ৬০ হাজারেরও বেশি দর্শককে মাঠে দেখা গিয়েছিল সুনীলদের হয়ে এক সুরে গলা ফাটাতে। ইস্টবেঙ্গল, মোহনবাগান হোক বা মহমেডান। কলকাতার ফুটবল সমর্থকরা হাতে হাত রেখে ভারতীয় দলের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন বাংলাদেশের বিরুদ্ধে এই ম্যাচে। এবার ফের কাতারের বিরুদ্ধে ঘরোয়া ম্যাচে যুবভারতীতেই খেলতে চাইছেন ভারতীয় ফুটবল দলের কোচ স্টিমাচ।

আরও পড়ুন, শুরু হতে চলেছে আইএসএল ৬, এক নজরে এফসি গোয়া

 

 

কলকাতার বিশ্বকাপ কোয়ালিফায়ারে পিছিয়ে থেকেও ড্র দিয়ে শেষ করেছিল ভারতীয় ফুটবল দল। এমনকি ভারতীয় দলের সমর্থকরা এক বিন্দুও পিছু হাটেননি ভারতকে সমর্থন করতে। তবে সব থেকে বেশি নজর কাড়া বিষয় ছিল সুনীল, খানদের প্রয়াস। সূত্রের খবর ভারতীয় কোচের পাশাপাশি একদল ভারতীয় ফুটবলাররাও চাইছে কাতারের বিরুদ্ধে ফিরতি ম্যাচটি কলকাতার মাঠে খেলতে। সেই কারণে আইএফএর তরফ থেকে আবেদনও জানানো হচ্ছে সর্বভারতীয় ফুটবল সংস্থাকে। দর্শকদের উচ্ছ্বাস ও উন্মাদনা এক কথায় ভারতীয় ফুটবলারদের লড়াই করার সাহস জুগিয়েছিল ঘরের মাঠে।

আরও পড়ুন, নিরাপত্তার কারণে পিছিয়ে গেল এল ক্লাসিকো, অসন্তুষ্ট বার্সেলোনা কোচ ভালভার্দে

আগামী ২৬ মার্চ এই প্রতিযোগিতারই ফিরতি ম্যাচ ঘরের মাঠে খেলবে ভারতীয় ফুটবল দল। প্রতিপক্ষ সেই ড্র করা কাতার। আর এই ম্যাচ ঘিরেই ফের শুরু হয়ে গেল উচ্ছ্বাস। তবে ভারতের এই ম্যাচ যুবভারতীতে হবে কি না সেই বিষয় নিয়ে শেষ সিদ্ধান্ত নেবে সর্বভারতীয় ফুটবল সংস্থা। ভারতীয় কোচ আইগর স্টিমাচের মতে, এতদিন এত জায়গায় কোচ ও ফুটবলার হিসাবে ম্যাচ খেললেও এতটা উন্মাদনা চোখে পরেনি ভারতীয় কোচের। আর ফিরতি ম্যাচ যুবভারতীতেই চাইছেন স্টিমাচ। আর সেই নিয়ে ফের একবার আগ্রহে প্রহর গুনছে ভারতীয় দলের সমর্থক সহ কলকাতার ফুটবল প্রেমীরা। এই মুহূর্তে ভারত পয়েন্ট তালিকায় সুবিধা জনক জায়গায় না থাকলেও, ম্যাচে আগামী ম্যাচগুলোতে বাজিমাৎ করতে চাইছে সুনীল ছেত্রীর দল।