লকডাউনের পর মাঠে ফিরে নিজেদের প্রথম ম্যাচে স্পার্সদের বিরুদ্ধে নেমেছিল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। সেই ম্যাচে পিছিয়ে পড়ে কোনওরকমে ড্র করে ওলে গানার শলসায়ারের ছেলেরা। ইতিমধ্যে চেলসি নিজেদের ম্যাচ জেতায় চ্যাম্পিয়ন্স লিগে যোগ্যতা অর্জনের লড়াইয়ে বেশ খানিকটা পিছিয়ে পড়েছিল ম্যান ইউ। সেই লড়াইয়ে টিকে থাকতে গত কালের ম্যাচে শেফিল্ড ইউনাইটেড-কে হারাতেই হত রেড ডেভিলসদের। এই মরশুমের লিগে লকডাউনের আগে অবধি ভালো ফর্মে ছিল শেফিল্ড। কিন্তু গতকাল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের বিরুদ্ধে মুখ থুবড়ে পড়ে শেফিল্ড। 

আরও পড়ুনঃসৌরভকে সরিয়ে কেকেআরের অধিনায়ক হয়েছিলেন গম্ভীর,সেদিন ঠিক কী বলেছিলেন শাহরুখ খান

ম্যাচের ১০ মিনিটের মধ্যেই প্রথম গোল তুলে নেয় ম্যান ইউ। মার্কাস র‍্যাশফোর্ডের অসাধারণ দৌড় এবং তার নিচু ক্রস থেকে গোল অ্যান্তোনি মার্শিয়ালের। এরপর আরও কিছু সুযোগ পেলেও গোল আসেনি। নিজে মার্শিয়াল-কে দিয়ে গোল করালেও দু বার সহজ সুযোগ পেয়েও গোল করতে ব্যর্থ হন র‍্যাশফোর্ড। এরপর প্রথমার্ধের একদম শেষ মুহূর্তে উইং ব্যাক ওয়ান বিসাকা-র বাড়ানো ক্রস থেকে পুনরায় গোল করেন মার্শিয়াল।পুরো ম্যাচের প্রথম তিন মিনিট বাদে বাকি সময় আগাগোড়া রাজত্ব করে রেড-ডেভিলসরা। ম্যাচের ৭৪ মিনিটে আবার র‍্যাশফোর্ডের পাস থেকে গোল করে নিজের হ্যাটট্রিক সম্পূর্ণ করেন মার্শিয়াল। ২০১৩ সালে রবিন ভ্যান পার্সির পর প্রথমবার একই ম্যাচে তিন গোল করলেন ম্যান ইউয়ের কোনও ফুটবলার। 

আরও পড়ুনঃমঙ্গলবার করোনা রিপোর্ট পজেটিভ,বুধবার নেগেটিভ,অবাক মহম্মদ হাফিজ

আরও পড়ুনঃনিজের হাতেই প্যান্ট খুলে মহিলার সঙ্গে নাচ মারাদোনার,নয়া বিতর্কে 'হ্যান্ড অফ গড',দেখুন ভাইরাল ভিডিও

ইপিএলের অপর ম্যাচগুলিতে জয় পায় উলভ্যাম্পটন ওয়ান্ডারার্স এবং লিভারপুল। ক্রিস্টাল প্যালেস-কে হারিয়ে ফুটবল ফেরার পর নিজেদের প্রথম জয় তুলে নেয় লিভারপুল। খাতায় কলমে লিগ জয় করতে তাদের প্রয়োজন আর ২ পয়েন্ট। হাতে রয়েছে ৭ টি ম্যাচ। এদিন তারা ক্রিস্টাল প্যালেস কে হারায় ৪-০ গোলে। চারজন ভিন্ন ভিন্ন খেলোয়াড় গোল করেন। অপরদিকে ফুটবল ফেরার পর টানা দু-ম্যাচে জয়ের ধারা অব্যহত উলভস-এর। এদিন বোর্নমাউথের বিরুদ্ধে ম্যাচের একমাত্র গোলটি করেন মেক্সিকান তারকা রাউল হিমিনেজ। স্প্যানিশ তারকা এডামা ট্রায়রের ক্রস করে গোল করে যান তিনি। এই জয়ের ফলে রেড ডেভিলসদের ঘাড়ে নিঃশ্বাস ফেলতে লাগলো উলভস।