নিয়মিত চশমা ব্যবহার করেন, মেনে চলুন কয়েকটি সহজ নিয়ম

First Published 5, Feb 2020, 4:48 PM

চোখের সমস্যা নানা কারণে হতে পারে। সে দীর্ঘক্ষণ একটানা কাজ করলেই হোক বা শরীরের অন্য কোনও সমস্যা। যে কোন বয়সে এই সমস্যা আসতেই পারে। আর  চোখের সমস্যায় আসলেই চশমা মাস্ট। যদিও কেউ কেউ আবার স্টাইলের জন্যও এই চশমা ব্যবহার করে। কিন্তু চশমা পরতে পরতে অনেক সময়েই একঘেয়েমি চলে আসে । তখন অনেকেই লেন্সের দিকে ঝোকে। কিন্তু একটানা লেন্স পরাও খুবই অসুবিধাজনক। তখন ঘুরেফিরে আবার চশমাতেই ফিরতে হয়। এই চশমা ব্যবহার করলেই হল না। এর বিশেষ কিছু নিয়মবিধি রয়েছে। যা মেনে চললে চোখও ভাল থাকে আর সেই সঙ্গে চশমাও। রইল বিশেষ কিছু টিপস।

চশমা ব্যবহার করার পর তা সবসময় খাপের মধ্যে রাখার চেষ্টা করুন। যেখানে সেখানে চশমা রাখবেন না।

চশমা ব্যবহার করার পর তা সবসময় খাপের মধ্যে রাখার চেষ্টা করুন। যেখানে সেখানে চশমা রাখবেন না।

চশমা বাছার সময় সর্তক থাকুন।  রোজ ব্যবহারের চশমা যেন ভারি না হয়। সেদিকে খেয়াল রাখুন।

চশমা বাছার সময় সর্তক থাকুন। রোজ ব্যবহারের চশমা যেন ভারি না হয়। সেদিকে খেয়াল রাখুন।

নিজের লুকের সঙ্গে ম্যাচ করে চশমা কিনুন।

নিজের লুকের সঙ্গে ম্যাচ করে চশমা কিনুন।

একটানা চশমা পরতে পরতে নাকের দুপাশে কালচে বাদামী রঙের দাগ পড়ে যায়। যা দেখতে খুবই খারাপ লাগে। কিন্তু দীর্ঘদিন ধরে এই চশমা ব্যবহার করতে করতে এই দাগও বসে যায়। অ্যালোভেরার রস নাকের দাগযুক্ত জায়গায় লাগিয়ে আধঘন্টার জন্য ম্যাসাজ করে নিন। তারপর ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। নিয়মিত একবার কর করলে এই দাগ উঠে যাবে।

একটানা চশমা পরতে পরতে নাকের দুপাশে কালচে বাদামী রঙের দাগ পড়ে যায়। যা দেখতে খুবই খারাপ লাগে। কিন্তু দীর্ঘদিন ধরে এই চশমা ব্যবহার করতে করতে এই দাগও বসে যায়। অ্যালোভেরার রস নাকের দাগযুক্ত জায়গায় লাগিয়ে আধঘন্টার জন্য ম্যাসাজ করে নিন। তারপর ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। নিয়মিত একবার কর করলে এই দাগ উঠে যাবে।

প্রতিদিন একবার করে চশমা পরিস্কার কিন্তু মাস্ট। হালকা গরম জল বা চশমার পরিস্কার করার লিক্যুইড দিয়ে চশমা পরিস্কার করুন।

প্রতিদিন একবার করে চশমা পরিস্কার কিন্তু মাস্ট। হালকা গরম জল বা চশমার পরিস্কার করার লিক্যুইড দিয়ে চশমা পরিস্কার করুন।

অন্ধকারে ব্যাগের মধ্যে চশমা রাখলে তা অনেকসময়েই খুঁজে পাওয়া যায় না। সেক্ষেত্রে চশমার খাপের উপর মার্কার দিয়ে রাখুন। অন্ধকারে যা সহজেই চোখে পড়বে।

অন্ধকারে ব্যাগের মধ্যে চশমা রাখলে তা অনেকসময়েই খুঁজে পাওয়া যায় না। সেক্ষেত্রে চশমার খাপের উপর মার্কার দিয়ে রাখুন। অন্ধকারে যা সহজেই চোখে পড়বে।

প্রতিদিন একবার করে চশমা পরিস্কার কিন্তু মাস্ট। হালকা গরম জল বা চশমার পরিস্কার করার লিক্যুইড দিয়ে চশমা পরিস্কার করুন।

প্রতিদিন একবার করে চশমা পরিস্কার কিন্তু মাস্ট। হালকা গরম জল বা চশমার পরিস্কার করার লিক্যুইড দিয়ে চশমা পরিস্কার করুন।

হার্ড কোনও সাবান দিয়ে চশমা পরিস্কার করবেন না। চশমা মোছার সময় নরম কাপড় দিয়ে মুছুন।

হার্ড কোনও সাবান দিয়ে চশমা পরিস্কার করবেন না। চশমা মোছার সময় নরম কাপড় দিয়ে মুছুন।

যাদের চোখের সমস্যা রয়েছে তারা সানগ্লাস ব্যবহার করলেও পাওয়ার দিয়ে ব্যবহার করবেন। এতে চোখ ভাল থাকবে।

যাদের চোখের সমস্যা রয়েছে তারা সানগ্লাস ব্যবহার করলেও পাওয়ার দিয়ে ব্যবহার করবেন। এতে চোখ ভাল থাকবে।

অন্ধকার ঘরে চোখে চশমা না দিয়ে মোবাইল ব্যবহার করবেন না কখনওই।

অন্ধকার ঘরে চোখে চশমা না দিয়ে মোবাইল ব্যবহার করবেন না কখনওই।

loader