'জয় শ্রীরাম' ধ্বনি দেওয়ার অপরাধে খুন! বিজেপি কর্মীর দেহ ভেসে উঠল পুকুরে। ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে হাওড়ার বাগনানে। অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা রুজু করে তদন্তে নেমেছে পুলিশ।

আরও পড়ুন: সরকারি হাসপাতাল থেকে উধাও রোগী, চাঞ্চল্য মালদহে

মৃতের নাম মন্টু মণ্ডল ওরফে ভোলা। বাগনানের ঈশ্বরপুর গ্রামে থাকতেন তিনি। এলাকায় বিজেপি কর্মী হিসেবে পরিচিত ছিলেন মণ্টু। সোমবার সকালে এলাকারই একটি পুকুরে তাঁর মৃতদেহ ভাসতে দেখেন স্থানীয় বাসিন্দারা। খবর দেওয়া হয় থানায়। মৃতদেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠিয়েছে পুলিশ।  বিজেপি-র স্থানীয় নেতৃত্বের দাবি, প্রায়শই প্রকাশ্যে 'জয় শ্রীরাম' ধ্বনি দিতেন মন্টু। এই নিয়ে স্থানীয় বেশ কয়েকজনের সঙ্গে গন্ডগোলও হয় তাঁর। ওই বিজেপি সমর্থককে 'জয় শ্রীরাম' ধ্বনি দিতে বারণও করা হয়। বারণ না শোনারই কী মাশুল দিতে হল? অভিযোগ তেমনই। দলের আইটি সেলের ইনচার্জ অনুপম মল্লিকের অভিযোগ, মন্টুকে পরিকল্পনামাফিক খুন করেছে তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরাই। যথারীতি অভিযোগ অস্বীকার করেছে তৃণমূল।

আরও পড়ুন: মৎস্যজীবীদের জালে দৈত্যাকার চিলশঙ্কর মাছ, হুলুস্থুলু কাণ্ড দিঘায়

আরও পড়ুন: হিংসার আবহে সম্প্রীতির বসন্ত,হিন্দু উৎসবের আয়োজক মুসলিম ইয়াসিন

এদিকে আবার প্রাথমিক তদন্তে পুলিশে অনুমান, রাতে অত্যাধিক মদ্যপান করেছিলেন মন্টু। নেশার বেসামাল হয়ে পুকুরে পড়ে যান। তদন্তকারীদের বক্তব্য, ময়নাতদন্তে রিপোর্টে মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে। তদন্তে নেমেছে বাগনান থানার পুলিশ।