Asianet News BanglaAsianet News Bangla

ভারতের সীমান্তে পাক সেনার জন্য অত্যাধুনিক বাঙ্কার, ফের পাকিস্তানকে উস্কানি চিনের

গোয়েসংস্থাগুলো জানিয়েছে, চিনা কোম্পানি মে মাস থেকে পাকিস্তান সেনাবাহিনীর জন্য নতুন বাঙ্কার সংস্কার ও নির্মাণ করছে। চিনা কোম্পানিগুলি আগেও PoK-তে নির্মাণ কাজ করেছে, কিন্তু এই প্রথমবার এমন একটি প্রকল্প তৈরি করা হচ্ছে যা নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর নেওয়া হয়েছে।

China is building bunkers for Pakistan Army on LoC, security agencies alert the government bpsb
Author
Kolkata, First Published Jul 24, 2022, 12:55 PM IST

ফের ভারতের বিরুদ্ধে পাকিস্তানকে উস্কাচ্ছে চিন। সম্প্রতি ভারতীয় গোয়েন্দাদের দেওয়া তথ্য এমনই ইঙ্গিত করছে। সাম্প্রতিক রিপোর্টে জানা গিয়েছে চিন ভারতের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করার কোনও সুযোগই ছাড়ছে না। ভারতীয় নিরাপত্তা সংস্থাগুলি সরকারকে জানিয়েছে যে একটি চিনা উত্পাদনকারী সংস্থা পাকিস্তান-অধিকৃত কাশ্মীরে (পিওকে) তাদের অফিস তৈরি করেছে। এর সাথে, এটি মুজাফফরাবাদ এবং আথমুকাম সংলগ্ন অঞ্চলে যে কাজ চলছে তা নিয়ন্ত্রণ করছে।

গোয়েসংস্থাগুলো জানিয়েছে, চিনা কোম্পানি মে মাস থেকে পাকিস্তান সেনাবাহিনীর জন্য নতুন বাঙ্কার সংস্কার ও নির্মাণ করছে। চিনা কোম্পানিগুলি আগেও PoK-তে নির্মাণ কাজ করেছে, কিন্তু এই প্রথমবার এমন একটি প্রকল্প তৈরি করা হচ্ছে যা নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর নেওয়া হয়েছে। এই এলাকাটি পাক অধিকৃত কাশ্মীরের নীলম উপত্যকা সংলগ্ন কেল সেক্টরে পাকিস্তান সেনাবাহিনী ৩২ ডিভিশনের আওতায় পড়ে।

বেজিং এর আগে রাজস্থানের বিকানেরের সামনে পাকিস্তানের মাটিতে তার সেনা এবং অত্যাধুনিক মেশিন পাঠিয়েছিল। এখানে একটি ফরোয়ার্ড এয়ারবেস আপগ্রেড করা হয়েছিল এবং ৩৫০টিরও বেশি পাথরের বাঙ্কার এবং বর্ডার আউটপোস্টগুলিকে সংস্কার করা হয়েছিল।

China is building bunkers for Pakistan Army on LoC, security agencies alert the government bpsb

পাকিস্তানের ঘনিষ্ঠ বন্ধু চিন এর আগেও বহুবার সোচ্চার হয়েছে ভারতের বিরুদ্ধে। পাকিস্তানকে একাধিকবার উস্কানি দেওয়া হয়েছে নয়াদিল্লির বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নিতে। আগামী বছর জম্মু ও কাশ্মীরে G-20 নেতাদের একটি বৈঠক করার পরিকল্পনা করছে ভারত। ভারতের এই পদক্ষেপে পাকিস্তানের পাশাপাশি চিনও আপত্তি জানিয়েছে। ড্রাগন তার ঘনিষ্ঠ বন্ধু পাকিস্তানের কথায় সুরে সুর মিলিয়ে জানিয়েছে যে সংশ্লিষ্ট পক্ষগুলিকে বিষয়টিকে রাজনীতি করা থেকে বিরত থাকতে হবে।

জম্মু ও কাশ্মীর ২০২৩ সালে G20 বৈঠকের আয়োজন করবে। বিশ্বের বৃহত্তম অর্থনীতি এই প্রভাবশালী গোষ্ঠীর অন্তর্ভুক্ত। জম্মু ও কাশ্মীর প্রশাসন সামগ্রিক সমন্বয়ের জন্য পাঁচ সদস্যের একটি উচ্চ-পর্যায়ের কমিটি গঠন করেছে। জম্মু ও কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা প্রত্যাহারের পর এটিই হবে এখানে প্রস্তাবিত প্রথম বড় আন্তর্জাতিক বৈঠক। এর বিরোধিতা করেছে পাকিস্তান। পাকিস্তান বলেছে, "পাকিস্তান ভারতের এমন কোনো প্রচেষ্টাকে সম্পূর্ণভাবে প্রত্যাখ্যান করে।"

সীমান্তের কাছে তৈরি গ্রাম, চিনের দখলদারি মনোভাব নিয়ে ভুটানকে সতর্ক করল ভারত

ভারতের মাটিতে তৈরি আস্ত একটা চিনা গ্রাম! এবার শিলিগুড়ি করিডোরে নজর বেজিংয়ের

কয়েক কোটি টাকা সম্পত্তির মালিক দ্রৌপদী মুর্মু, রাষ্ট্রপতি পদপ্রার্থীর ব্যক্তিগত জীবন মোটেও সুখের ছিল না

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios