দলীয় কার্যালয়ের সামনে স্ত্রীর গায়ে হাত তুললেন মেহরুলি জেলার বিজেপির জেলা সভাপতি আজাদ সিং। আর সেই অপরাধেই নিজের পদ খোয়ালেন তিনি। আজাদ সিং-এর স্ত্রী সরিতা চৌধুরি হলেন দক্ষিণ দিল্লির প্রাক্তন মেয়র। সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে এমনই একটি ভিডিও।ভাইরাল হওয়া এই ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, আজাদ সিং পান্থ মার্গে তাঁর দলীয় কার্যালয়ের বাইরে কয়েকজন ব্যক্তির সামনে সরিতা চৌধুরিকে চড় মারতে দেখা যায়। উপস্থিক ব্যক্তিরা পার্টিরই সদস্য বলে মনে করা হচ্ছে। 

বিজেপির সাধারণ সম্পাদক রাজেশ ভাটিয়া জানিয়েছেন, আজাদ সিং-কে তাৎক্ষণিক রাজ্য সভাপতির পদ থেকে বহিস্কার করে দেওয়া হয়েছে। এবং তার পরিবর্তে সেই জায়গায় অন্তর্বর্তীকালীন একজন জেলা সভাপতি নিয়োগ করা হয়েছে বলেও জানা গিয়েছে। দিল্লির বিজেপি সভাপতি মনোজ তিওয়াড়ি জানিয়েছেন, দলের শীর্ষ নেতৃত্বদের নিয়ে তৈরি একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে যাঁরা এই ঘটনার একটি রিপোর্ট তৈরি করবেন বলে জানি গিয়েছে।

আরও পড়ুন- সমস্ত জল্পনার অবসান, ধর্ষণের অভিযোগে অবশেষে গ্রেফতার প্রাক্তন বিজেপি সাংসদ চিন্ময়ানন্দ 

আরও পড়ুন- হাতির হামলায় জেরবার কৃষকরা, গজরাজের আশীর্বাদ পেতে স্থাপন করলেন বিশাল মূর্তি

আরও পড়ুন- অজানা বিকট গন্ধে নাকাল বাণিজ্যনগরী, গ্যাস লিক না অন্যকিছু, চলছে জোর জল্পনা

একজন বর্ষীয়ান বিজেপি নেতার কথায়, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভেড়করের নেতৃত্বে একটি বৈঠকে যোগ দিয়েছিলেন দলের নেতারা। দলের বর্ষীয়ান নেতারাও সেই বৈঠকে যোগ দেন বলে খবর। বৈঠক সেরে ফেরার পর দলীয় কার্যালয়তেই এই ঘটনা ঘটে বলে জানি গিয়েছে।  যদিও এই ঘটনার পর আজাদ সিং জানিয়েছেন, প্রথমে স্ত্রীই তাঁকে চড় মারেন। যদিও এই বিষয়ে সরিতা চৌধুরির তরফে এখনও কোনও বক্তব্য শোনা যায়নি। তাঁর এক সহযোগীর কথা, সংবাদ মাধ্যমের সঙ্গে কথা বলার মতো অবস্থায় নেই তিনি।  যদিও পুলিশ সূত্রে খবর, এই বিষয়ে এখনও কোনও অভিযোগউ দায়ের করা হয়নি।