মাত্র ১২ মিনিটের মধ্যে চারবার কেঁপে উঠল মাটি। আর এর ফলেই ধসে গেল দেওয়ালের এক অংশ। আর আকস্মিক এই দুর্ঘটনার ফলেই প্রাণ গেল ৫৫ বছর বয়সী এক ব্যক্তির।ঘটনাটি ঘটেছে মহারাষ্ট্রের পালগড় জেলায়। সংবাদ সংস্থা সূত্রের খবর, বৃহস্পতিবার রাতে আকস্মিক ভুকম্পে কেঁপে ওঠে পালগড়। আর তার জেরেই দেওয়াল ধসে মৃত্যু হয়েছে ওই ব্যক্তির।

সূত্রের খবর, প্রথমবার ভুমিকম্প অনুভুত হয় রাত ১টা বেজে তিন মিনিট নাগাদ। সেবার রিখটার স্কেলে  ভুমিকম্পের মাত্রা ছিল ৩.৮। এরপর রাত ১টা বেজে ১৫ মিনিটের মধ্যে আরও তিনবার ভুমিকম্প অনুভুত হয় সেখানে।পরেরবার রিখটার স্কেলে ভুমিকম্পের মাত্রা ধরা পড়েছে যথাক্রমে ৩.৬, ২.৯ এবং ২.৮। 

ভুমিকম্পে মৃতের নাম রিষ্যা মেঘওয়ালে। সূত্রের খবর এই দুর্ঘটনার জেরে তাঁর স্ত্রীও আহত হয়েছেন। খবর পেয়েই পালগড় বিপর্যয় মোকাবিলা পর্ষদের তরফ থেকে একটি দল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করতে উপস্থিত হন। জানা গিয়েছে, বুধবার থেকে এখনও পর্যন্ত সেখানে মোট সাতবার ভুকম্পন অনভূত হয়েছে। জানা গিয়েছে ভূকম্পের উৎসস্থল ছিল সেখানকার দুন্ডালওদি গ্রামে ১০ কিলোমিটার গভীরে। 

বাংলাদেশে প্রতি তিন মিনিটে একজন আক্রান্ত ডেঙ্গুতে, একদিনেই হাসপাতালে ভর্তি হল ৫৬১ জন

নেপালে বন্যায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে হল ১০৮, চলছে উদ্ধারকার্য

একে ভূমিকম্প তারওপর আবার বৃষ্টিপাতের কারণে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন গ্রামবাসীরা। আতঙ্কে তাঁরা এলাকা ছেড়ে যেতেও ভয় পাচ্ছিলেন। তবে বেশকিছু গ্রামবাসীকে এলাকা থেকে বের করে নিয়ে এসেছে নিরাপদ স্থানে আশ্রয় দেওয়া হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।