Asianet News Bangla

জানালা খোলা রাখলে ভাইরাস বেরিয়ে যাবে, করোনা রুখতে দিদির নিদান

  • করোনা ভাইরাস থেকে উদ্ধার চান
  • অভিনব উপায়ের কথা বললেন মমতা
  • ঘরের জানালা খোলা রাখলেই বেরোবে ভাইরাস
  • করোনা রুখতে নয়া বিকল্প মুখ্য়মন্ত্রীর
Chief Minister Mamata Banerjee gives advice on corona virus
Author
Kolkata, First Published Mar 16, 2020, 7:46 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

করোনা ভাইরাস থেকে উদ্ধার পেতে এবার রাজ্য় সরকারি কর্মীদের নয়া রাস্তা দেখালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্য়োপাধ্যায়। অভিনব এই দাওয়াই শুনে সোশ্য়াল মিডিয়ায় শুরু হয়ে গিয়েছে টিপ্পনি। অনেকেই বলতে শুরু করেছেন, মমতা আছে মমতাতেই।

করোনার উপসর্গ জেনেও বেলেঘাটা আইডি থেকে ফেরার মহিলা, থানায় খবর

রাজ্য়ে ক্রমশ বেড়েই চলেছে করোনা সন্দেহে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। এই পরিস্থিতির মোকাবিলা করতে সোমবার জরুরি ভিত্তিতে বৈঠক ডাকেন মুখ্যমন্ত্রী। সরকারি সেই সভায় ডাকা হয় রাজ্য়ের প্রশাসনিক আধিকারিকদের। পরে বৈঠক শেষে মুখ্য়মন্ত্রী বলেন, হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার করার পাশাপাশি আপনারা ঘরের জানালাগুলো খোলা রাখুন। যেখানে এসি আছে সেখানেও জানালা খোলা থাক। আমি শুনেছি জানালা খোলা থাকলে অনেক ভাইরাস বেরিয়ে যায়।

করোনায় আক্রান্ত গ্রাহক, আতঙ্কে বিছানা বয়কটে নিষিদ্ধপল্লীর মেয়েরা

তবে এই প্রথমবার নয় , কদিন আগেই করোনা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী আরও এক বচনে শোরগোল পড়ে গিয়েছিল সোশ্যাল মিডিয়ায়। যেখানে মুখ্য়মন্ত্রী বলেন, সব মাছ যেমন ইলিশ নয়, তেমনই সব ভাইরাস করোনা নয়। এই বলেই অবশ্য় থেমে থাকেননি মমতা। মুখ্য়মন্ত্রী বলেন, হাঁচি পেলে কি হাঁচবেন না? তা তো হয় না! মনে রাখবেন সব ভাইরাস করোনা নয়। সব মশা ডেঙ্গি নয়। সব মাছ ইলিশ নয়। এদিন  মঞ্চে দাঁড়িয়ে হাঁচি কাশি পেলে কী করবেব তাও বেল দেন মমতা। ভাইরাস থেকে বাঁচতে এক ঘণ্টা অন্তর হাত ধোওয়ার নিদান দেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, ২০ সেকেন্ড অন্তত সাবান দিন। নখ পরিষ্কার করুন। হাতের মাঝখানটা কিন্তু সাবান দিতে ভুলবেন না। ওখানটা বেশি ময়লা জমে।

দলে এলেও পদ্ম কাঁটা, শোভনকে মেয়র প্রোজেক্ট করবে না তৃণমূল

তবে সভায় বারবার আতঙ্কিত না হওয়ার আবেদন করেন মুখ্যমন্ত্রী।  যদিও ভাইরাস নিয়ে বার বার উষ্মা ঝড়ে পড়ে তাঁর গলায়। সম্প্রতি করোনা আটকাতে মাস্কের বিকল্প বাতলে বিতর্কের সৃষ্টি করেন দিলীপ ঘোষ। তাঁর সুতো কাপড় দিয়ে মাস্ক তৈরির নিদান ইতিমধ্য়েই ছড়িয়ে গিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।   

বৃহস্পতিবার বিজেপির রাজ্য সদর দফতরে একটি সাংবাদিক সম্মেলন করেন রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ৷ সেখানে মাক্সের আকাল নিয়ে তাকে প্রশ্ন করা হলে, দিলীপ ঘোষ বলেন,চায়না থেকে কম দামে মাক্স আসত ভারতে৷ এখন সেখানে যা পরিস্থিতি ,তাতে সেখানেই প্রচুর মাক্স প্রয়োজন৷ তাই চায়না থেকে ভারতে মাক্স সাপ্লাই হচ্ছে না৷ করোনা রুখতে মাস্ক ও স্যানেটাইজার ব্যবহার করার কথা বলেন দিলীপবাবু৷ যদিও পরে মাস্ক না থাকলে বাড়িতে পরিষ্কার কাপড় কেটে সুতলি দিয়ে বেধে নেওয়ার কথা বলেন তিনি। বিজেপির রাজ্য় সভাপতি  বলেন, ভাইরাসের সাইজ বড় হওয়াতে সাধারণ কাপড়ে নাকি এই ভাইরাস আটকানো যাবে৷

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios