সাতসকালে লরির ধাক্কায় হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ল বাসস্ট্যান্ডের ছাউনি। প্রাণ হারালেন দু'জন, গুরুর আহত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি আরও ২। ভয়াবহ দুর্ঘটনা ঘটল উত্তর কলকাতার মানিকতলায়।

আরও পড়ুন: কবে থেকে চাকা গড়াবে লোকাল ট্রেন, ভিড় নিয়ন্ত্রণে কী ব্যবস্থা, আজ রেল-রাজ্য বৈঠকে সিদ্ধান্ত

সোমবার ভোরের ঘটনা। আর্মহাস্ট স্ট্রিটে দিক থেকে দ্রুতগতিতেই আসছিল একটি লরি। নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে লরিটি প্রথমে ধাক্কা মারে ফুটপাথ লাগোয়া একটি বাগানে। এরপর পর পর দুটি ল্যাম্পপোস্টে ধাক্কা মারে গাড়িটি। ল্যাম্পপোস্টগুলির সামনেই ছিল চায়ের দোকান ও বাসস্ট্যান্ড। বিপদ বুঝে লাফিয়ে চায়ের দোকান থেকে বেরিয়ে যান মালিক। তারপর যা হওয়ার, তাই হয়। বাসস্ট্যান্ডের দুটি পিলারে সজোরে ধাক্কা মারে নিয়ন্ত্রণহীন লরিটি। ধাক্কার তীব্রতা এতটাই ছিল যে, প্রায় সঙ্গে সঙ্গে হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ে বাসস্ট্যান্ডের কংক্রিটের ছাউনি। দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হন চারজন। তাঁদের মধ্যে একজন আবার পেশায় ফটোগ্রাফার। রাতভর কাজ করার পর সকালে তিনি চা খেতে বেরিয়েছিলেন বলে জানা গিয়েছে।

আরও পড়ুন: কোভিড বিধি মেনে ডাকাত এল ঠাকুরপুকুরে, মাস্কের আড়ালে ব্যবসায়ীকে করল সর্বশান্ত

এদিকে এই ঘটনার পর আহতদের তড়িঘড়ি নিয়ে যাওয়া হয় হাসপাতালে। কিন্তু শেষরক্ষা হয়নি। হাসপাতালে দু'জনকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। বাকি দু'জনের চিকিৎসা চলছে। কিন্তু, লরির চালক কেন নিয়ন্ত্রণ হারালেন? যান্ত্রিক সমস্যার কারণেই কি ঘটল দুর্ঘটনা? খতিয়ে দেখছে পুলিশ।