করোনা রুখতে রাজ্য় তথা দেশ জুড়ে চলছে লকডাউন। যার জেরে অনেকেই আটকে পড়েছেন রেল স্টেশনে। আবার যেসব ভবঘুরেরা সারাবছর অন্য়ের থেকে খাবারের ভরসায় দিন পার করেন, তাদেরও বলতে কোনও খাবারের বন্দ্য়োবস্ত নেই। আর এরকম সময়ই এগিয়ে আসল ভারতীয় রেল। রবিবার থেকেই  প্রায় ৫০০০ মানুষকে বিরিয়ানি খাওয়াবে ভারতীয় রেল।

আরও পড়ুন, করোনা মোকাবিলায় বিপুল খরচ, নতুন নিয়োগ বন্ধের সিদ্ধান্ত রাজ্যের

জানা গিয়েছে, রেলের ভোজে এবার খিচুড়ির পাশাপাশি এবার থেকে দেওয়া হবে ভেজ বিরিয়ানি। রবিবার থেকেই লক ডাউন পরিস্থিতিতে রেলস্টেশন এলাকায় আটকে পড়া প্রায় ৫০০০  মানুষকে বিরিয়ানি খাওয়ানো হচ্ছে ভারতীয় রেলের তরফে। শিয়ালদহ এবং হাওড়া স্টেশনের বাইরে প্রতিদিন রেলরক্ষী বাহিনীর উপস্থিতিতে চলছে খাবার পরিবেশন। সকাল থেকে রাত অবধি ১৩ জন কর্মী অক্লান্ত পরিশ্রম করে খাবার তৈরি করছেন। আইআরসিটিসি-এর হিসেব অনুযায়ী, প্রতিদিন এই খাবার তৈরি করতে প্রায় ৩০০ কেজি চাল ও ৩০০ কেজি সবজি লাগছে।  

আরও পড়ুন, 'জনসংখ্য়ার অনুপাতে করোনা আক্রান্তের সংখ্য়া অনেক কম', অভয় বার্তা দিলেন চিকিৎসক কুনাল সরকার


কলকাতার তিনটি বাজার থেকে এই সমস্ত জিনিস সংগ্রহ করা হয়। আইআরসিটিসি'র গ্রুপ জেনারেল ম্যানেজার দেবাশিস চন্দ জানান,'এখনও পর্যন্ত খাবার জোগাড় করতে অসুবিধা হয়নি। আমরা যতদিন প্রয়োজন হবে ততদিনই খাবার খাওয়াবো।  একবেলা নয়, দুই বেলাই। তবে যদি দরকার পড়ে আমরা রাজ্য সরকারের থেকে সাহায্য নেব।' তবে আইআরসিটিসি বিভিন্ন খোলা বাজার থেকেই সংগ্রহ করছে এই সমস্ত কাঁচামাল।  বেস কিচেনের ইলেকট্রিক উনুনে রান্না হচ্ছে। তবে সবই চলছে সিসি ক্যামেরার পর্যবেক্ষণে। দিল্লি থেকে রেলমন্ত্রক সরাসরি খাবার তৈরির সমস্ত পদ্ধতিতে নজর রাখছে।

 

 

 রাজ্য়ে করোনায় আক্রান্ত এবার এক নার্স, পরিবারকে কোয়ারেনটাইনে থাকার নির্দেশ স্বাস্থ্য দফতরের

করোনা আক্রান্তদের এমআর বাঙ্গুরে স্থানান্তর ঘিরে তুলকালাম, অভিযোগ নিয়ে অবস্থান বিক্ষোভে নার্সরা

পাঁচিল টপকালেই ভাইরাস এক্সপার্ট সেন্টার, তবুও মুখ ফিরিয়ে মেডিক্য়াল কলেজ