৩৫ তম বর্ষে ডি-এল ব্লক রেসিডেন্টস এসোসিয়েশনের পুজোয় থাকছে বাংলার কুটির শিল্পের নানা নমুনা। মণ্ডপটি নির্মিত হতে চলেছে মাদুর কাঠি, শীতল পাটির মতো কুটির শিল্পের বিভিন্ন নিদর্শন দিয়ে। থিমের সঙ্গে সাবেকিয়ানার এক অপূর্ব মেলবন্ধন দেখা যাবে ডি-এল ব্লকের এই পুজোয়।

আরও পড়ুন- সমাজে পথ শিশুদের জায়গা করে দিতেই এবার মা আসছে প্রগতি সংঘে

     ডি-এল ব্লকের পুজোর সেক্রেটারি জানিয়েছেন পুজো ছাড়াও বিভিন্ন কর্মসূচির সঙ্গে যুক্ত থাকছেন তারা। সেই কর্মসূচিগুলির মধ্যে পরিবেশ বান্ধব এবং কিছু সমাজকল্যানমূলক। সপ্তমী এবং অষ্টমীতে থাকছে ব্লকের বাসিন্দাদের বসিয়ে খাওয়ানোর ব্যবস্থা। আর নবমীতে একটি নির্দিষ্ট বৃদ্ধাশ্রম থেকে কয়েকজন বৃদ্ধ এবং বৃদ্ধা অতিথি হিসাবে উপস্থিত থাকবেন ডি-এল ব্লকের এই পুজোয়। তিনি আরও জানিয়েছেন যে এইবার পুজোয় তাদের বাজেট ২৩ লক্ষ টাকা, যার মধ্যে অনেকটাই খরচ হবে সেই পরিবেশ বান্ধব এবং সমাজকল্যাণমূলক কর্মসূচিতে। পঞ্চমীতে তাদের পুজোর উদ্বোধন, তার আগেই মণ্ডপসজ্জার কাজ সম্পূর্ণ করতে মরিয়া মণ্ডপসজ্জার সঙ্গে যুক্ত শিল্পীরা।

আরও পড়ুন- এবার মাধব দাস লেন সর্বজনীন দুর্গোৎসবের মায়ের হাত ধরেই আলোকিত হবে ডাক, জেনে নিন তাদের পুজোর থিম

   যদি থিমের পুজোর সঙ্গে সাবেকিয়ানার মেলবন্ধনকে উপভোগ করতে চান তবে আসতেই হবে সল্টলেক ডি-এল ব্লকের এই পুজোয়।