শুধু দলের নেতাকর্মীরাই নন,সাধারণ মানুষও হতে পারবেন বিজেপির পুরসভা নির্বাচনের প্রার্থী। খোদ দলের রাজ্য় সদর দফতরে সেই জন্য রাখা হল ড্রপ বক্স। যেখানে নিজেদের নাম নথিভুক্ত করতে পারবেন যে কেউ।   

দিদিকে বলো-তে ফোন করার ডাক, মঞ্চ থেকে এ কী বললেন অমিত শাহ

রাজ্য় নির্বাচনের হাওয়ার গতি  প্রকৃতি  বলছে, এপ্রিলের শেষেই পশ্চিমবঙ্গে পুর নির্বাচন। তার আগেই দলের প্রার্থী পেতে অভিনব পন্থা গ্রহণ করল বিজেপি। দলের তরফে জানানো হয়েছে, পুরভোটকে সামনে রেখে সাধারণ মানুষকেও সুযোগ দিতে চায় গেরুয়া শিবির। পুর এলাকা পরিচিতি মুখ অথচ কোনও দলের টিকিট পান না এরকম লোকদের প্রার্থী করতে ইচ্ছুক তারা। মূলত, ওয়ার্ডে  জনপ্রিয় মুখ খুঁজতেই এই উদ্য়োগ নিয়েছে গেরুয়া ব্রিগেড।  বিজেপির বাইরেও এদের আবেদনপত্র বিচার করে দেখবে দল।  

কলকাতার বুকেও 'গোলি মারো', বিতর্কিত স্লোগানে কাঁপল ধর্মতলা

সরকারিভাবে এখনও পুরভোটের দিনক্ষণ ঘোষণা হয়নি।  কিন্তু কলকাতায় অমিত শাহের সিএএ সংবর্ধনা সভা শুরু হতেই ভোটের ঢাকে একপ্রকার কাঠি পড়ল। শাসক দলের বিরুদ্ধে একজোট হতে এদিন শহিদ মিনারের মঞ্চ থেকেই 'আর নয় অন্যায়' প্রচার শুরু করলেন অমিত শাহ।   

লোকসভা নির্বাচনে রাজ্য়ে ১৮টি আসন পেয়ে তৃণমূল কংগ্রেসকে কড়়া টক্কর দিয়েছিল বিজেপি। কিন্তু পরবর্তীকালে রাজ্য়ের বিধানসভা উপনির্বাচনে সেই ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে পারেনি  দিলীপ ঘোষের দল। ফলে অমিত শাহের ভোকাল টনিক নেওয়ার জন্য প্রস্তুত ছিল রাজ্য় বিজেপি। নিরাস করেননি অমিত শাহ। শ্য়ামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের বাংলা থেকে এবার একেবারে আাগামী নির্বাচনের প্রচার শুরু করে দিলেন এই সর্বভারতীয় বিজেপি নেতা।  সামনে পুরসভা ও তারপর বিধানসভা নির্বাচনে সেই বাংলায় পদ্ম ফোটাতে ব্যস্ত গেরুয়া অমিত  শাহরা।

'কোন স্বার্থে নাগরিকত্ব আইনের বিরোধিতা করছেন' মমতাকে প্রশ্ন অমিত শাহের

এদিন শহিদ মিনারের মঞ্চ থেকে আর নয় অন্য়ায় প্রাচরে একটি  নির্দিষ্ট ফোন নম্বরে মিসড কল করতে বলেন তিনি। আগত কর্মী সমর্থকদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, কতজনের কাছে মোবাইল আছে? আপনারা মোবাইল বের করে দেখান। এরপরই 9727294294 ওই ফোন নম্বরে মিসড কল দিতে বলেন তিনি। এই মোবাইল নম্বর বলেই থেমে থাকেননি বিজেপির সেকেন্ড ইন কমান্ড।  অমিত শাহ বলেন, ‘শুধু আপনারাই নয়, আপনাদের বাবা-মা, স্ত্রী, পুত্র, ভাই-বোন সবাইকে বলুন মিসড কল দিতে। দিদিকে বলো-তে ফোন করে বলুন 'আর নয় অন্যায়'।