বিধানসভা ভোটের আগে ফের প্রকাশ্যে তৃণমূলের গোষ্ঠী কোন্দল। হাওড়ার বালি বিধানসভায় বিধায়কদের সঙ্গে প্রকাশ্যে এল গোষ্ঠী কোন্দল। বুধবার হওয়া পিকের টিমের বৈঠকে দলকে সরাসরি আক্রমণ করলেন বিধায়ক বৈশাখী ডালমিয়া। দলীয় কোন্দলের জেরে মহিলা কাউন্সিলরকে মারধর করা হয়েছে বলেও অভিযোগ। প্রকাশ্যে দলের বিরুদ্ধে কী ইঙ্গিত দিলেন বালির বিধায়ক।

আরও পড়ুন-মরার উপর খাঁড়ার ঘা, নতুন বছরে কমতে চলেছে বেতন, জানুন কারণ

জানাগেছে, বুধবার সকালে বালি বিধানসভা কেন্দ্রের ১৬ জন প্রাক্তন কাউন্সিলার নিয়ে একটি ভবনে দলীয় বৈঠক করেন টিম পিকে। কিন্তু সেই বৈঠকে ডাকা হয়নি বালির বিধায়ক বৈশালী ডালমিয়াকে । এমনই অভিযোগ তুলে মিটিং এর শেষ মুহূর্তে সেখানে উপস্থিত হয় বালি ব্লকের প্রাক্তন সভানেত্রী বিজয় লক্ষ্মী রাও । তখনই সেখানে উপস্থিত বেশ কয়েকজন প্রাক্তন কাউন্সিলার চড়াও হয় তাঁর ওপর । এমনকি, ৬৩ নম্বর ওয়ার্ডের প্রাক্তন পৌর মাতা শোভা দেবী তাকে মারধর করেছে বলে অভিযোগ তোলেন বালির বিধায়ক।

আরও পড়ুন-সিএএ বিরোধিতায় ফের স্লোগান, বনগাঁর সভা থেকে ঝড় তুললেন তৃণমূল নেত্রী

এর বিরুদ্ধে একটি বিস্ফোরক ফেসবুক পোস্ট করেন বালির বিধায়ক। যেখানে তিনি তারই দলের প্রাক্তন পুরো প্রতিনিধিদের হুলিগ্যান বলে আখ্যা দেন। শুধু তাই নয়, প্রাক্তন প্রতিনিধিদের তিনি অপদার্থ, দুর্নীতিগ্রস্ত বলেও দাবি করেন। পাশাপাশি তিনি আরও বলেন, এই সমস্ত লোকেরা যদি দল চালায়, তাহলে তিনি দল থেকে সরে যাবেন। এই নিয়ে শাসকদলকে কটাক্ষ করলেন হাওড়া সদরের জেলা বিজেপি সভাপতি সুরজিৎ সাহা। তিনি বলেন, ''তৃণমূল কংগ্রেসের শেষের শুরু হয়ে গিয়েছে''।