Asianet News BanglaAsianet News Bangla

Parenting: ক্রমে বাড়ছে বাচ্চার লাজুক স্বভাব, সোশ্যাল অ্যাংজাইটি ডিসঅর্ডারে ভুগছে না তো

আজকাল পরিবার বলতে শুধু মা-বাবা আর সন্তান। খুব বেশি হলে দাদু-দিদা। মা-বাব দুজন কর্মরত (Working) অধিকাংশ বাচ্চাই আজকাল কাজের মাসির কাছে বড় হচ্ছে। পাড়ায় খেলা, আত্মীয়ের বাড়িতে যাওয়া- এসব এখন প্রায় বন্ধ হয়ে গিয়েছে বললেই চলে। একা বড় হওয়ার জন্য কম কথা বলা, লাজুক (shyness) স্বভাব এমনকী একা একা থাকতে বেশি অভ্যস্ত তারা।

Be careful Shyness can cause of Social Anxiety Disorder
Author
Kolkata, First Published Nov 12, 2021, 8:33 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

১০ বছরে পা দিলে রিয়া। মেয়ের জন্মদিন উপলক্ষে বড় পার্টি দিয়েছে বাবা। সেখানে আত্মীয়-স্বজন, বন্ধু-বান্ধব সকলেই উপস্থিত। একটা ফ্যামিলি গ্যাদারিং (Family Gathering) বলা চলে। সকলেই বেশ আনন্দ করছে। কিন্তু, পার্টি যার জন্য সে ঘরের এক কোণে বসে। কারও সামনে যেতে চাইছে মা রিয়া। এত লোকজন দেখে একটু বেশিই লজ্জা (Shyness) পাচ্ছে। এই অবস্থা শুধু ১০ বছরের রিয়ার নয়। বহু ছেলে-মেয়ের। আজকাল বাচ্চাদের মধ্যে লাজুক স্বভাব খুবই সাধারণ বিষয়। 

আজকাল পরিবার বলতে শুধু মা-বাবা আর সন্তান। খুব বেশি হলে দাদু-দিদা। মা-বাবা দুজন কর্মরত  (Working) অধিকাংশ বাচ্চাই আজকাল কাজের মাসির কাছে বড় হচ্ছে। পাড়ায় খেলা, আত্মীয়ের বাড়িতে যাওয়া- এসব এখন প্রায় বন্ধ হয়ে গিয়েছে বললেই চলে। একা বড় হওয়ার জন্য কম কথা বলা, লাজুক স্বভাব এমনকী একা একা থাকতে বেশি অভ্যস্ত তারা। কিন্তু, জানেন কি এই স্বভাব এক সময় মানসিক রোগের কারণ হয়ে দাঁড়াতে পারে। গবেষণায় (Research) দেখা গিয়েছে, লাজুক স্বভাব থেকে দেখা দিচ্ছে সোশ্যাল অ্যাংজাইটি ডিসঅর্ডার (Social Anxiety Disorder)। 

আরও পড়ুন: Parenting Tips: ক্রমে নেশা গ্রাস করছে যুব সমাজকে, জেনে নিন সন্তানকে রক্ষা করবে কী করে

সামাজিক কোনও অনুষ্ঠানে যাওয়ার আগে অপরিচিতদের সমালোচনার কথা ভেবে অনেকেই পিছিয়ে যায়। লোকজনকে এড়িয়ে চলে। আত্মবিশ্বাসের অভাবের দেখা দেয়। এই ভাবনা থেকে মানসিক চাপ (Mental Stress) সৃষ্টি হয়। উদ্বেগ ও  অস্বস্তি বোধ হয়। যা থেকে ধীরে ধীরে মানসিক রোগ (Mental Illness) দেখা দিতে পারে। 

আরও পড়ুন: Healthy Skin- শুধু সাবান নয়, শরীর ও মন তরতাজা রাখতে স্নানের জলে মিশিয়ে নিন এগুলি

কীভাবে বুঝবেন বাচ্চা সোশ্যাল অ্যাংজাইটি ডিসঅর্ডারে ভুগছে- এই সমস্যায় ভুগলে বিশেষ ধরনের শারীরিক ও চারিত্রিক উপসর্গ দেখা যায়। সবার আগে খেয়াল করলেন বাচ্চা কারও সামনে যেতে অধিক ইতস্তত (Heisted) বোধ করছে কিনা। যদি দেখেন সে সবেতেই লজ্জা পাচ্ছে, ভয় পাচ্ছে, একা একা থাকতেই বেশি পছন্দ করছে- বুঝবেন তাহলে আপনার সতর্ক হওয়ার সময় এসেছে। কোথাও যাওয়ার আগে টেনশন (Tenson), নার্ভাস (Nervous) হওয়া, টেনশনে ঘাম হওয়া, কারও সঙ্গে কথা বলতে গেলে এড়িয়ে (Avoide) চলার, আত্মবিশ্বাসের অভাব, সব জিনিস থেকে পিছিয়ে আসা- এমন স্বভাব মোটেই ভালো হয়। বাচ্চার মধ্যে এমন সমস্যা দেখা দিতে ছোট বয়সেই তা নির্মূল করুন। কারণ, দীর্ঘদিন ধরে এমন সমস্যা থাকলে তা ভবিষ্যতে বড় আকার নিতে পারে। মনে রাখবেন, এই স্বভাব সব সময়সেই দেখা যায়। 
 
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios