সারা বছরের এই একটা সময়ের জন্য় অপেক্ষা করে থাকে, যে কবে কালী পূজো আসবে। অমাবস্য়ার অন্ধকার সরিয়ে দীপাবলিতে চারিদিক আলোতে আলোময় হয়। মোমবাতি,প্রদীপ, টুনি বাল্বে,বাজির আলোর রোশনাই এ সেজে ওঠে। কিন্তু এই খুশীর মুহূর্তে অনেক সময় অসতর্কতার জন্য় কিছু সমস্য়ার সৃষ্টি হয়, প্রধানত বাজি পোড়ানোর ক্ষেত্রে। তাহলে  জেনে নিন, দীপাবলির সময় কী কী নিয়ম মেনে চলবেন


কী করবেন

১। বাজি ফাটানোর পর অবশ্য়ই হাত ধুয়ে নিন। কারন বাজির বারুদ হাতের মাধ্য়মে শরীরের কোথাও স্পর্শ করলে ক্ষতি হতে পারে।

২। ঘরে প্রাথমিক চিকিৎসার ব্য়বস্থা অবশ্য়ই রাখুন। কারন বাজির আগুনের ফুলকি কোনও ভাবে ক্ষতি করলে প্রাথমিক সমাধান টুকু সম্ভব হবে। কিন্তু বড় সমস্য়ায় দ্রুত ডাক্টারের পরামর্শ নিন।

৩।  টুনি বাল্ব কিংবা যেকোনও বৈদ্য়তিক বাতি জ্বালানোর আগে সর্বদা জুতো পরে নিন।

আরও পড়ুন, কয়েকটি সহজ উপায়ে সাজিয়ে ফেলুন আপনার বাড়ির অন্দরসজ্জা, রইল তার টিপস

কী করবেন না

১।  বাজি ফাটানোর সময় কখনই ছোট বাচ্চাদের কাছাকাছি রাখবেন না। ছোটরা কৌতুহলের বশে বাজির দ্বারা ক্ষতিগ্রস্থ হতে পারে।

২। বড় কিংবা ছোট যেই হোকনা কেন,সিন্থেটিক কাপড় পরে বাজি ফাটাবেন না। কারন সিন্থেটিক কাপড়ে বাজির আগুনের ফুলকি পড়লে দ্রুত আগুন ছড়াবে।

৩। বাজি না ফাটলেও কাছাকাছি যাবেন না।  কারন অনেক সময় বাজির বারুদের তেজ কম হলে, বাজি দেরীতে ফাটে।

আরও পড়ুন, কালীপুজো মানে বাঙালির মনে এই আবেগগুলি জড়িয়ে থাকবেই