কর্মক্ষেত্রে মহিলা ও পুরুষদের মধ্য়ে ভেদাভেদ ক্রমশ অস্তমিত। প্রত্যেকেই টার্গেটে পৌঁছনোর জন্য নিজের সবটুকু দিয়ে খাটেন। সম্প্রতি আমেরিকার শ্রম দফতর একটি সমীক্ষা চালান। সেই সমীক্ষার রিপোর্ট আমেরিকান টাইমে প্রকাশিত হয়। এই সমীক্ষা থেকেই দেখা যাচ্ছে অফিসের কাজের বোঝা সামাল দিতে ঘুমের বারোটা বাজাচ্ছেন কর্মরতা মহিলারা। 

ওয়াল স্ট্রিট জার্নালেও এই সংক্রান্ত একটি রিপোর্ট প্রকাশিত হয়। এই রিপোর্টে দেখা যাচ্ছে ২০০৩ সালে কর্মরতা মহিলারা অফিসে যে পরিমাণ সময় ব্যয় করতেন তার তুলনায় বর্তমানে অনেক বেশি সময় ব্যয় করেন তাঁরা। ২০১৮ থেকে সমীক্ষাটিতে দেখা যাচ্ছে, অফিসে গড়ে প্রত্যেক দিন ৭ ঘণ্টা ২০ মিনিট করে ব্যয় করছেন মহিলারা। গত ৫ বছরে ২০ মিনিট সময় বেড়েছে বলে জানা যাচ্ছে রিপোর্টটি থেকে। 

আরও পড়ুনঃ ঋতুকালীন যন্ত্রণা থেকে মুক্তি পেতে খান এই ৬ টি খাবার

তবে শুধু অফিসের কাজই নয়। যে কর্মরতা মহিলাদের সন্তান আছে তাঁরা গড়ে প্রতিদিন ২ ঘণ্টা সন্তানের দেখাশোনাতে ব্যয় করছেন। অন্যদিকে কর্মরত পুরুষরা সন্তানের জন্য আধ ঘণ্টা থেকে ১ ঘণ্টা ব্যয় করছেন। 

বাড়ির কাজ, অর্থাৎ রান্না বান্না, ঘরের দেখাশোনা করতে এই কর্মরতা মহিলারা যে সময় ব্যয় করে তার চেয়ে আধ ঘণ্টা কম সময় ব্যয় করেন পুরুষরা। 

এত কাজের চাপে, মহিলারা ঘুমের সঙ্গেই আপোশ করছেন। মহিলারা বিশ্রাম, শরীরচর্চা ও বিনোদনমূলক কাজের জন্য ৩ ঘণ্টা ৪৫ মিনিট ব্য়য় করতে পারেন। পুরুষরা সে জায়গায় ব্যয় করেন ৪ ঘণ্টা ৪০ মিনিট। ঘুমের সময়েও পিছিয়ে রয়েছেন মহিলারা। 

এই সমীক্ষা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হলেও ভারতের চিত্রটাও খুব আলাদা নয়। এবং যত দিন যাচ্ছে ততই মহিলারা কর্মক্ষেত্রের জন্য বেশি সময় ব্যয় করছেন। আবার বাড়ি ফিরে সেই কাজেও মন দিতে হচ্ছে। তাই চিত্রটা প্রায় এক বললেও ভুল বলা হবে না।