যথাসময় কংগ্রেসের সর্বভারতী নেতৃত্ব রাজ্যে আসবেন ভোট প্রচারে। বুধবার কলকাতায় একটি সাংবাদিক বৈঠকে জানিয়েছিলেন প্রদেশ সভাপতি অধীর রঞ্জন চৌধুরী। পরের দিনই কংগ্রেস সূত্রের খবর শেষ দুদফার ভোট প্রচারে বাংলায় আসতে পারেন রাহুল গান্ধী। রাহুল গান্ধী ও তাঁর প্রিয়াঙ্কা গান্ধী অসম, পদুচেরি কেরল ও তামিলনাড়ুতে জোর কদমে প্রচার চালাচ্ছেন। কিন্তু এখনও পর্যন্ত এই রাজ্যে ভোট প্রচারে দেখা যায়নি দলের কেন্দ্রীয় স্তরের কোনও নেতাকে। যা কিছুটা হলেও অস্বস্তি বাড়িয়েছিল দলের রাজ্য নেতৃত্বের। সূত্রের খবর, দিনক্ষণ এখনও চূড়ান্ত হয়নি। তবে শেষ দুদফার ভোটের জন্য রাহুল গান্ধী রাজ্য সফর করবেন। 


সূত্রের খবর বাংলায় এখনও পর্যন্ত কংগ্রেসের শক্ত ঘাঁটি রয়েছে সেইসব এলাকায় রাহুল গান্ধী প্রচার করবেন। শেষ দুদফা ভোট গ্রহণ হবে ২৭ ও ২৯ এপ্রিল। সেই সময় বাংলার কংগ্রেসের শক্তঘাঁটি মালদা, মুর্শিদাবাদ ও উত্তর দিনাজপুর ও উত্তরবঙ্গের কয়েক এলাকায় ভোট গ্রহণ হবে। আর রাহুল সেই সব এলাগুলিতেই ভোট চাইতে যেতে পারেন। রাহুল ভোট প্রচারে রাজ্যে আসছেন এটাই ভালো দিক বলে জানিয়েছেন নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক কংগ্রেস নেতা। 

চতুর্মুখী লড়াইয়ের কেন্দ্র ভাঙড়, নকশাল-পীরজাদা ভোট কাটাকাটিতে লাভের গুড় কে খাবে ...

বেহালায় মিঠুনের রোড শো বাতিল, ফোঁস করে উঠলেন বিজেপির 'কোবরা' প্রচারক ..

রাজীবকে গদ্দার আর নির্বাচন কমিশনকে প্রশ্ন, ডোমজুড়ের জনসভায় আক্রমণাত্মক মমতা ...

বাংলার কংগ্রেস নেতা প্রদীপ ভট্টাচার্য জানিয়েছেন কংগ্রেসের শক্তিশালী আসনগুলিতে পঞ্চম দফা থেকে লড়াই শুরু হবে। আর সেই সূচি নিয়ে ইতিমধ্যেই রাহুলের সঙ্গে আলোচনা করা হয়েছে। অঙ্ক কষেই রাহুলের প্রচারসূচি তৈরি করা হচ্ছে বলেও কংগ্রেস সূত্রের খবর। তবে উত্তরবঙ্গের বেশ কয়েকজন প্রার্থী এখনও হাল ছাড়েননি। এখনও ভোট প্রচারে রাহুলকে আনার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। রাহুল রাজ্যে এলেও বামেদের সঙ্গে ভোট প্রচারে অংশ নেবে কিনা তা নিয়ে গুঞ্জন শুরু হয়েছে। এই রাজ্যে বাম কংগ্রেস জোট বেঁধে ভোটে লড়লেও কেরলে দুই রাজনৈতিক দলই প্রতিদ্বন্দ্বী। এই রাজ্যে ২৯৪টি আসনের মধ্যে কংগ্রেস লড়াই করছে ৯২টি আসছে। স্থানীয় এক সিপিএম নেতা নাম না প্রকাশ করার শর্তে বলেছেন, কেরলের ভোটের পরেই রাহুল বঙ্গে আসবেন সেরকমই অলিখিত বোঝাপড়া হয়েছে।