Asianet News BanglaAsianet News Bangla

Murder Case: হঠাৎ আত্মসমর্পণ সোমনাথের, ঘুরে গেল ব্যবসায়ী সব্যসাচী মণ্ডল খুনের তদন্তের মোড়

সোমনাথ খুন হওয়া ব্যক্তি সব্যসাচী মন্ডলের সম্পর্কে কাকার ছেলে। খুনের ঘটনায় তার বিরুদ্ধে লুক-আউট নোটিশ জারি করে ছিলো পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিশ।

Somnath Mandal, the main accused in  Howrah businessman murder case, surrendered BSM
Author
Kolkata, First Published Nov 16, 2021, 8:23 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

হাওড়ার ব্যবসায়ী সব্যসাচী মণ্ডল খুনে (Sabyasachi Mandal Murder) নয়া মোড়। দীর্ঘ দিন গা ঢাকা দিয়ে থাকার পর মঙ্গলবার বর্ধমান জেলা আদালতে (Bardhaman District Court) করল আত্মসমর্পণ করল এই ঘটনার মূল অভিযুক্ত সোমনাথ মণ্ডল (Somnath Mondal)। সব্যসাচীর খুড়তুতো ভাই সে। দীর্ঘদিন ধরেই তাকে হন্যে হয়ে খুঁজছিল পুলিশ। ঘটনার পর থেকেই ফেরার ছিল সোমনাথ। পুলিশ সূত্রে খবর সে নিজে থেকেই আত্মসমর্পণ করে। 

২২ অক্টোবর রাতে পূর্ব বর্ধমানের রায়না থানার দেরিয়াপুরে পৈত্রীক বাড়িতে এসে খুন হয়েছিলেন। সম্পত্তিগত কারণে সুপারি কিলার লাগিয়ে খুন করা হয়েছে তার ছেলে কে বলে রায়না থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছিলেন সব্যসাচীর বাবা। সোমনাথ খুন হওয়া ব্যক্তি সব্যসাচী মন্ডলের সম্পর্কে কাকার ছেলে। খুনের ঘটনায় তার বিরুদ্ধে লুক-আউট নোটিশ জারি করে ছিলো পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিশ। এর আগে ধাপে ধাপে খুনের তদন্ত এগিয়ে নিয়ে যায় পুলিশ, ধারা পরে ব্যবসায়ী খুনে জড়িত তিন সুপারি কিলাররা। কিন্তু এই ঘটনায় পুলিশের তালিকায় মূল অভিযুক্ত ছিলো ব্যবসায়ীর ভাই সোমনাথ মন্ডল। এই হাইপ্রোফাইল ব্যবসায়ী খুনের ঘটনায় তাঁকে হন্য হয়ে খুঁজছিল জেলা পুলিশ। হঠাৎ মঙ্গলবার বর্ধমানের সি.জে.এম আদলতে বিচারক সুজিত বন্ধোপাধ্যায়ের এজলাসে আত্মসমর্পণ করে সোমনাথ।

Rajasthan CM: শিক্ষকদের সভায় ঘুষ নিয়ে প্রশ্ন, মুখ লাল হল অশোক গেহলটের

Shocking Video: 'ভয়ঙ্কর প্রমোদ বিহার', মাঝ আকাশে ছিঁড়ল প্যারাসুটের দঁড়ি, দেখুন তারপর কী হল

Jammu Kashmir: নিহত ২ ব্যবসায়ী কি জঙ্গি সমর্থক, প্রশ্নের মুখে শ্রীনগরের জঙ্গি বিরোধী অভিযান

এর আগে পুলিশ জানিসার আলম ওরফে রিকিকে গ্রেফতার করেছিল। ঘটনাস্থলে নিয়ে গেলে সেখানে গোটা ঘটনার কথা স্বীকার করতে গিয়ে কান্নায় ভেঙে পড়ে ' সুপারি কিলার ' রিকি।কীভাবে  দেরিয়াপুরে গ্রামের বাড়িতে আসা সব্যসাচীকে পরিকল্পনা মাফিক খুন করা হয় তার বিবরণ দেয় রিকি। তাকে দিয়ে গোটা ঘটনার পুননির্মাণ করায় পুলিশ।

 ঘটনার দিনে জামালপুরে দামোদর নদের উপর কালাড়াঘাট ব্রিজের সি সি টিভি ফুটেজই তদন্তে মোড় ঘুরিয়ে দেয়।  দেরিয়াপুরে সব্যসাচী মণ্ডলের পৈতৃক বাড়িতে রিকিকে নিয়ে যাওয়ার আগে তাকে পুলিশ বালাগড়ে রাজীব কাজির চায়ের দোকানেও নিয়ে যাওয়া হয়। রাজীব কাজি জানান পুলিশ একজনকে তার চায়ের দোকানে নিয়ে আসে।  তবে এতদিন সোমনাথ কোথায় ছিল তা নিয়ে এখনও মুখ খেলেনি পুলিশ। 
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios