'মানুষের কাছে ভ্যাকসিন পৌঁছাতে আমরা প্রস্তুত', মোদির সঙ্গে বৈঠকে জানালেন মমতা

| Nov 24 2020, 02:55 PM IST

'মানুষের কাছে ভ্যাকসিন পৌঁছাতে আমরা প্রস্তুত', মোদির সঙ্গে বৈঠকে জানালেন মমতা

সংক্ষিপ্ত

  • করোনা ভ্যাকসিন নিয়ে মোদি-মমতা বৈঠক
  • বৈঠকে ভ্যাকসিন নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ আলোচনা 
  • কেন্দ্র-রাজ্য যৌথভাবে কাজ করার আর্জি
  • রাজ্যের বকেয়া টাকা নিয়েও সওয়াল
     

করোনাভাইরাস ভ্যাকসিন সংক্রান্ত বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী মোদির সঙ্গে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠক করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কেন্দ্র সবুজ সঙ্কেত দিলেই প্রত্য়েকের কাছে ভ্যাকসিন পৌঁছে দিতে রাজ্য় সরকার প্রস্তুত রয়েছে বলে বৈঠকে জানান মুখ্যমন্ত্রী। একইসঙ্গে, রাজ্যের বকেয়া টাকা নিয়েও প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনা করেন মমতা।  

আরও পড়ুন-'শুভেন্দুর সঙ্গে দিঘায় সাক্ষাৎ', খবর ছড়াতেই দলীয় চাপে জেলা সভাধিপতি, মুচলেকা দিয়ে শেষরক্ষা

Subscribe to get breaking news alerts

''আমরা সম্পূর্ণ প্রস্তুত রয়েছি, সমস্ত মানুষের কাছে ভ্যাকসিন পৌঁছে দেওয়ার জন্য''। প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে এই বার্তা দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মঙ্গলবার বাঁকুড়া থেকে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সে যোগ দিয়েছিলেন, এই বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, ''রাজ্য সব রকম ভাবে প্রস্তুত রয়েছে। প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত কর্মীরা প্রস্তুত রয়েছেন। কেন্দ্রীয় সরকারের সবুজ সংকেত পাওয়া গেলেই প্রত্যেক মানুষের কাছে ভ্যাকসিন পৌঁছে দেওয়ার কাজ শুরু করা হবে''। কেন্দ্রীয় সরকার এবং বিভিন্ন সংস্থার সঙ্গে যৌথভাবে রাজ্য কাজ করার জন্য প্রস্তুত বলেও জানান মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। 

আরও পড়ুন-করোনা ভ্যাকসিন নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠক মোদির, তার আগে প্রধানমন্ত্রীকে তোপ মমতার

ভ্যাকসিন এর ব্যাপারে রাজ্য সরকার প্রস্তুত হলেও একাধিক ইস্যুতে কেন্দ্রীয় সরকারের সমালোচনা করেছেন এই দিনের বৈঠকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বৈঠকে জানিয়েছেন, রাজ্যের একাধিক ক্ষেত্রে বকেয়া টাকা পাওনা রয়েছে কেন্দ্রের কাছে। আরও একবার সেই টাকা মিটিয়ে দেওয়ার আবেদন করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রী বৈঠকে জানিয়েছেন, ''জিএসটি বাবদ যে টাকা বকেয়া রয়েছে সেই টাকা অবিলম্বে মিটিয়ে দেওয়া হোক রাজ্য সরকারকে''। 

আরও পড়ুন-আকাশ ছোঁয়া আলু-পেঁয়াজের দাম, নয়া কৃষি আইন নিয়ে বাঁকুড়া থেকে কেন্দ্রকে তোপ মমতার

একইসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, ''দুর্গাপূজা, কালীপূজা এবং ছট পুজোতে দূরপাল্লার ট্রেন এবং লোকাল ট্রেন চলাচল করার কারণে করনা ভাইরাসের সংক্রমণ কিছুটা হলেও বেড়েছে এই রাজ্যে। তবে রাজ্য সরকারের এবং বিভিন্ন ক্ষেত্রের কর্মীদের অসাধারণ কর্ম দক্ষতার কারণে সংক্রমণকে এক জায়গায় আটকে রাখা সম্ভব হয়েছে''। মৃত্যুহার অনেক কমেছে বলেও জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী, একইসঙ্গে তিনি বলেছেন, রাজ্যে বেড়েছে সুস্থতার হার। 

আরও পড়ুন-কলকাতার মেয়র-প্রশাসক, রাজ্যের মন্ত্রী, জেনে নেওয়া যাক ফিরহাদের সম্পত্তির পরিমাণ

এ দিনের বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী ছাড়াও ছিলেন মহারাষ্ট্র, গুজরাট, রাজস্থান এবং আরও বেশ কয়েকটি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী। বৈঠকে মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, বৃহত্তর স্বার্থকে উপেক্ষা করে রাজনৈতিক স্বার্থকে বড় করে দেখা হচ্ছে। রাজনৈতিক মিটিং - মিছিল করা হচ্ছে। মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রীর এই মন্তব্যকে সমর্থন করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।