Asianet News Bangla

প্রেমিকার আপত্তিকর ছবি নিয়ে চলত ব্ল্যাকমেল, ক্যারাটে খেলোয়াড় পামেলার মৃত্যুতে গ্রেফতার সানি

প্রাক্তন প্রেমিকের  আপত্তিকর ছবি ফাঁস করে দেওয়ার হুমকি পেয়েই  ভয় ও অপমানে  গলায় ফাঁস লগিয়ে আত্মহত্যা করে জাতীয় স্তরের ক্যারাটে খেলোয়াড়  পামেলা অধিকারী। পামেলার মৃত্যুতে অবশেষে পুলিশের জালে সানি খান। 
 

Sunny Khan has been arrested in connection with the death of karate player Pamela Adhikari RTB
Author
Kolkata, First Published Jul 14, 2021, 4:13 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

 জাতীয় স্তরের  ক্যারাটে খেলোয়াড় পামেলার মৃত্যুতে অবশেষে পুলিশের জালে সানি খান।  বালির প্রতিভাবান মহিলা ক্যারাটে খেলোয়াড় পামেলা অধিকারীর মৃত্যুর ঘটনায় অভিযুক্ত সানি খানকে গ্রেফতার করল বালি থানার পুলিশ। গ্রেফতারের পর তাঁকে হাওড়া হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় শারীরিক পরীক্ষার জন্য। এরপর বুধবার হাওড়া আদালতে নিয়ে আসা হয় ধৃত সানি খানকে।  

আরও পড়ুন, গোধূলি লগনের প্রেমে মত্ত দিলীপ ঘোষ, টুইটার ভরিয়ে দিলেন আবেগভরা পোস্টের কহনে


পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, সানি খানের বয়স ১৯। এবং সে বিবাহিত। সোশ্যাল মিডিয়ায় আলাপ বালির ওই মহিলা খেলোয়াড়ের সঙ্গে। ফোনে যোগাযোগ ছিল দুজনের। একদিন সানির স্ত্রী ফোন ধরে ফেলে। তারপর দুজনের সম্পর্কের বিষয়ে জানতে পেরে সানির  পরিবারে সেই নিয়ে অশান্তি হয়। সানির স্ত্রী ফোন ধরায় ওই মহিলা জানতে পারে সানি বিবাহিত। সে সানির সঙ্গে সম্পর্ক ছেদ করতে চায়। তার পরেই সানি তার খেলা শুরু করে। ফোন নম্বর ব্লক করে দিলেও সানির অন্য নম্বর থেকে ফোন করত। সানি ঘুরিয়ে ফিরিয়ে নানান নম্বর থেকে ফোন করা শুরু করত। ওই মহিলা খেলোয়াড়ের আপত্তিকর কিছু ছবি সানির কাছে ছিল। সম্পর্ক না রাখলে সেই ছবি ভাইরাল করে দেবার হুমকি দেয়। শুরু হয় ব্ল্যাক মেইলিং। সে আরও ছবি চাইতে শুরু করে এবং না দিলে তার সমস্ত ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্টের সঙ্গে সঙ্গে বাবা মাকেও পাঠাবে বলে হুমকি দেয়।

 

 

আরও পড়ুন, 'লম্বা ছুটি কাটাতে যাচ্ছি', সাতসকালে দিলীপের ফের দিল্লি সফর ঘিরে জল্পনা তুঙ্গে

প্রকাশ্যে ছবি চলে আসার ভয় ও অপমানে  গলায় ফাঁস লগিয়ে আত্মহত্যা করে জাতীয় স্তরের ওই খেলোয়াড়। পুলিশ তদন্তে নামে। আত্মঘাতী হবার আগে হাতের ওপরে লেখা ছয় ডিজিটের নম্বরকে কাজে লাগায় পুলিশ। বালি থানার পুলিশ ও হাওড়া সিটি পুলিশের সাইবার বিশেষজ্ঞদের সহযোগিতায়  মোবাইল থেকে বেশ কিছু তথ্য সংগ্রহ করে। পরিবারের পক্ষ থেকে তোলা অভিযোগ ও মোবাইল থেকে পাওয়া তথ্যের  সুত্র ধরে পুলিশ সানি খানের খোঁজ চালায়। গতকাল পূর্ব বর্ধমানের গলসি থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। আজ হাওড়া সি জে এম আদালতে তাকে পেশ করা হয়।ঘটনার পর বেশ কিছু দিন মোবাইল বন্ধ রেখেছিল সানি। এরপর মোবাইল খুললে তার টাওয়ার লোকেশন ট্র্যাক করা হয়। হোক সানি খানের ফাঁসি চাইছেন বালির পরিবারের লোকজন।
 

আরও পড়ুন, ভরা বর্ষায় সর্ষে ইলিশ, সঙ্গে ২-৩ দিনের সফর, নয়া ভাবনায় 'হিলশা ট্যুরিজম'

আরও পড়ুন, ভাইরাসের ভয় নেই তেমন এখানে, ঘুরে আসুন ভুটানে  

আরও দেখুন, মাছ ধরতে ভালবাসেন, বেরিয়ে পড়ুন কলকাতার কাছেই এই ঠিকানায়  

আরও পড়ুন, রাজ্য়ের সর্বনিম্ন সংক্রমণ এই জেলায়, বৃষ্টিতে হারাতেই পারেন পুরুলিয়ার পাহাড়ে

আরও দেখুন, বৃষ্টিতে বিরিয়ানি থেকে তন্দুরি, রইল কলকাতার সেরা খাবারের ঠিকানার হদিশ  

আরও দেখুন, কলকাতার কাছেই সেরা ৫ ঘুরতে যাওয়ার জায়গা, থাকল ছবি সহ ঠিকানা 

আরও পড়ুন, বনগাঁ লোকাল নয়, জাপানে ঠেলা মেরে ট্রেনে তোলে প্রোফেশনাল পুশার, রইল পৃথিবীর আজব কাজের হদিস 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios