বৃহস্পতিবার রাজটোকে ভারত-বাংলাদেশ টি২০ সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচ। বুধবার সকালে দুই দল যখন অনুশীলন করল তখন আকাশ পরিস্কার। ঝকঝক করছে রোদ। কিন্তু বুধবার রাত থেকে ছবিটা বদলে যাওয়ার ইঙ্গিত দিচ্ছে হাওয়া অফিস। আবর সাগরে তৈরি হওয়া ঘূর্ণিঝড় মহা বৃহস্পতিবার দুপুরে গুজরাত উপকূলে আছড়ে পরবে বলেই পূর্বাভাষ জারি করেছে আবহাওয়া দপ্তর। আর এই ঝড়ের প্রভাবে গুজরাত ও মহাষ্ট্রের বৃষ্টির কথা জানানো হয়েছে। আর এটাই ভআরতীয় দলের কাছে সব থেকে বড় মাথা ব্যথার কারণ। তিন ম্যাচের সিরিজে ১-০তে পিছিয়ে আছে ভারত। রাজকোটে জয় না পেলে সিরিজও আরা জেতার সম্ভাবনা থাকছে না। তাই ক্রিকেট মহল বলছে আবহাওয়ার ওপরই নির্ভর করছে এই সিরিজের ভাগ্য। 

আরও পড়ুন - একদিনের ক্রিকেটে পরিবর্তন চান সচিন, তৈরি করে দিলেন পরিকল্পনা

তবে আকাশ যে কথাই বলুক। ভারতীয় দল নিজেদের তৈরি করে রাখছে। দ্বিতীয় টি-২০ ম্যাচের আগে সাংবাদিক সম্মেলন করতে এসে ভারত অধিনায়ক রোহিত বলেন, দলের ব্যাটিং নিয়ে তিনি চিন্তিত নন, পরিবেশ পরিস্থিতি বুঝে শুধু বদল করতে চান দলের পেস বোলিং বিভাগ। রাজকোটে বৃষ্টি হলে দলের পেস বোলি বিভাগটাই সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠবে। রোহিত কারও নাম না বললেও খালিল আহমেদের জায়গায় শার্দুল ঠাকুরের আসার সম্ভাবনা দেখছেন ক্রিকেট বিশেষজ্ঞরা। 

 

আরও পড়ুন - দিল্লি দূষণের জেরে মাঠেই বমি করেছিলেন সৌম্য সরকার, রিপোর্ট ঘিরে চাঞ্চল্য

প্রথম ম্যাচে বাংলাদেশের কাছে হারকে কেউই খুব একটা গুরুত্ব দিয়ে দেখতে নারাজ। তবে সবাই একাটা বিষয় মাথায় রাখছেন, দ্বিতীয় ম্যাচে প্রতিপক্ষকে মাথা তুলে দাঁড়াবার জায়গা দেওয়া চলবে না। আক্রমণাত্মক ক্রিকেট খেলতে হবে তাঁদের। রোহিত সেই বিষয়টাও পরিস্কার করে দিয়েছেন। দলের নীতিতে কিছুটা হলেও পরিবর্তন আসছে। দিল্লির হারের প্রসঙ্গ উঠতেই রোহতি বলছেন, আমরা দলগত ভাবে হেরেছি। আবার দল হয়ে আমাদের জয়ের রাস্তায় ফিরতে হবে। দিল্লি ম্যাচের ভুল থেকে শিক্ষা নিতে হবে আমাদের। বলছেন টিম ইন্ডিয়ার নেতা। 

আরও পড়ুন - দেশের বাইরেও খেলতে পারবে আইপিএল দলগুলি, প্রস্তাব গভর্নিং কাউন্সিলের