দিল্লির করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ক্রমশই উদ্বেগ বাড়াচ্ছে। দেশের করোনা আক্রান্ত রাজ্যগুলির ক্রমতালিকায় রাজধানী রয়েছে তৃতীয় স্থানে। আক্রান্তের সংখ্যা ৪৭ হাজারের বেশি। এখনও পর্যন্ত মৃত্য়ু হয়েছে ১৯০৪ জনের। দিল্লির পরিস্থিতি নিয়ে প্রথম থেকেই উদ্বেগ প্রকাশ করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল।তাঁর আশঙ্কা জুনের শেষ ও জুলাইয়ের শেষে আরও মারাত্মক আকার নেবে দিল্লির করোনা পরিস্থিতি। এই পরিস্থিতিতে দাঁড়িয়ে এই নিয়ে দ্বিতীয়বার বৈঠক করতে চলেছেন অমিত শাহ। 

দিল্লি ও রাজধানী সংলগ্ন এলাকার এলাকার করোনা মহামারীর পরিস্থিতি নিয়েই আলোচনা করবেন  কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ। দুপুর ১২টার সময় ডাকা হয়েছে এই বৈঠক। প্রশাসনের শীর্ষ কর্তা ও জেলা শাসকদের উপস্থিতিতেই হবে এই বৈঠক। 

দিন কয়েক আগেই রাজধানীর করোনা পরিস্থিতি নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল উপরাজ্যপাল অনিল বাইজাল , কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রী হর্ষ বর্ধনের সঙ্গে বৈঠক করেছিলেন। ঘুরে দেখেছিলেন এনএনজেপি হাসপাতাল। রাজধানীর করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় কেন্দ্র সহযোগিতা করবে বলেও জানিয়েছিলেন তিনি। তারপর এদিন আবারও পরিস্থিতি মোকাবিলায় বৈঠক করতে চলেছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ। 

শৌচালয় থেকে সাবধান, জল দেওয়ার সময়ও ছড়াতে পারে করোনার জীবানু দাবি চিনের বিজ্ঞানীদের ...

প্রতিরক্ষামন্ত্রীকে নিশানা করে '৫ ডাবলু' রাহুলের, লাদাখ ইস্যুতে সনিয়ার বিঁধলেন মোদীকে ..

চিনা পন্য ব্যবহারে নিষেধ বিএসএনএল-কে, আত্ম নির্ভর ভারতের পথে পদক্ষেপ কেন্দ্রের ...