সম্প্রতি ঝুলন গোস্বামীর বায়োপিকের শুটিং শুরু হয়েছে। আর সেই ছবির সূত্র ধরেই শহরে আসছেন অনুষ্কা শর্মা। শনিবার ইডেনে সেই বায়োপিকের কিছু অংশের শুটিং হবে। ইডেনের শুটিং শেষ করেই  অনুষ্কা আবার মুম্বই ফিরে যাবেন। শুটিং-এর সময় অনুষ্কাকে সাহায্য় করবেন ঝুলন গোস্বামী।

আরও পড়ুন, মোদীকে স্বাগত জানাতে বিমানবন্দরে ফিরহাদ, মমতার মাস্টারস্ট্রোক দেখছে রাজনৈতিক মহল


 বছর দুয়েক আগেই ঝুলন গোস্বামীর এই বায়োপিক হওয়ার কথা প্রথম ঘোষণা করা হয়। শেষমেষ ঝুলন গোস্বামীর বায়োপিক আসছে এবার। ঝুলন গোস্বামীর বায়োপিকের কথা ঘোষণা করেছিলেন পরিচালক সুশান্ত ঘোষ । তবে এখন তিনি সরে দাঁড়িয়েছেন। সুশান্ত ঘোষ প্রথমে বাণী কাপুরকে ঝুলনের চরিত্রে ভেবেছিলেন। সূত্রের খবর, প্রিয়াঙ্কা চোপড়ার সঙ্গেও তার কথা হয়েছিল। তবে শেষ অবধি ঝুলনের ভূমিকায় দেখা যাবে অনুষ্কা শর্মাকে। 

আরও পড়ুন, জাঁকিয়ে ঠান্ডা কলকাতায়, তাপমাত্রা একলাফে নামল ২ ডিগ্রি

চাকদহ থেকে লোকাল ট্রেনে চেপে ঝুলন গোস্বামী আসতেন কলকাতায়। সারাদিন প্র্যাকটিস করার পর  আবার লোকাল ট্রেনে চেপে ফিরতেন চাকদহে। তবে কেরিয়ার-এর স্ট্রাগল পিরিয়ড তাঁর জন্য যেন একটু বেশিই দীর্ঘ ছিল। কারণ, ভারতীয় দলের ক্রিকেটার হওয়ার পরও ঝুলন গোস্বামীকে চাকদহ থেকে যাতায়াত করতে হত লোকাল ট্রেনেই। জসপ্রিত বুমরা, ইশান্ত শর্মা, ভুবনেশ্বর কুমারদের মতো ভারতীয় দলের তারকা পেসাররা লোকাল ট্রেনে যাতায়াত করলে হইচই পড়ে যেত হয়তো। কিন্তু ঝুলন গোস্বামীর ক্ষেত্রে তেমন হইচই হয়নি।  

আরও পড়ুন, রাস্তায় দাঁড়িয়ে সিএএ-র প্রতিবাদীরা, রুট বদলে জলপথে বেলুড় যাবেন মোদী

শনিবার, প্রথমে ইডেনের ড্রেসিংরুমেই হবে এই শুটিং। অনুষ্কা শর্মাকে সাহায্য় করতে আজ সেখানে উপস্থিত থাকবেন ঝুলন। এরপর অনুষ্কা শুটিং শেষে ফিরে যাবেন মুম্বই। তারপরে ঝুলনেরও মুম্বই যাওয়ার কথা। তবে বায়োপিক নিয়ে এখনই প্রকাশ্য়ে কোনও কথা বলতে চাইছেন না ঝুলন গোস্বামী। জানা গিয়েছে, ইতিমধ্য়ে ঝুলনের হাঁটাচলা, মাঠে তাঁর শরীরী ভাষা,  আচরণ রপ্ত করার জন্য গত কয়েক মাস ধরে প্রস্তুতি শুরু করেছেন।