ফের কলকাতার গঙ্গা ঘাট থেকে লক্ষ্য করা গেল ডলফিন। সেই ছবি ধরা পড়তেই এটা প্রমাণ হয়ে গেল যে শহরের দূষণের মাত্রা এখন অনেকটাই কমেছে ৷ হুগলি নদীতে এই দৃশ্য অত্যন্ত বিরল ৷ লকডাউনের জেরে দূষণের মাত্রা  কলকাতায় এতটাই কমে গিয়েছে যে নদীতে ডলফিনকে মনের সুখে লাফ দিতে দেখা যাচ্ছে।

আরও পড়ুন, 'সংবিধান মেনে চলুন-যাদের মাইক ধরার কথা তাদেরকে ধরতে দিন', মুখ্যমন্ত্রীর উদ্দেশ্য়ে টুইট রাজ্যপালের

দীর্ঘ লকডাউনের জেরে যেমন কমেছে বায়ুদূষণ, সঙ্গে কমেছে জলদূষণও। যার ফলে ফিরছে হারিয়ে যাওয়া পশু। বৈশাখে বিচিত্র সব  পাখির দেখা মিলছে শহরে। আর এবার গঙ্গায় দেখা মিলল ডলফিনের। উপগ্রহ চিত্রে দেখা যাচ্ছে, লকডাউনের পর বাতাসে এরোসোলের পরিমাণ অনেকটা পরিমাণে নেমে গেছে। যা নাকি মূলত ২০ বছর আগে দেখা মিলত। দক্ষিণ এশিয়ার এই রিভার ডলফিন গঙ্গায় আগে অনেকসময়েই দেখা যেত ৷  এদিকে গঙ্গায় অক্সিজেনের পরিমাণও অনেকটাই বেড়েছে। যা স্বাভাবিক মাত্রার থেকেও বেশী। এই সব কিছু মিলিয়েই গঙ্গা বক্ষে দেখা মিলেছে ডলফিনের।

আরও পড়ুন, সঙ্ঘাত শেষেও ঘরবন্দি, করোনা পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে মুখ্যসচিবকে চিঠি কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দলের

 বিশেষজ্ঞদের মতে,  গাঙ্গেয় ডলফিনদের বিলুপ্তির অন্যতম প্রধান কারণ গঙ্গায় দূষণ। তবে দীর্ঘ লকডাউনের জেরে শব্দ দূষণও নেই এখন শহরে।  মূলত ডলফিনরা আলট্রাসনিক সাউন্ডের সাহায্যে নিজেদের মধ্যে যোগাযোগ রেখে চলে। এবং শব্দতরঙ্গের একটা নির্দিষ্ট মাত্রা আছে ডলফিনদের মধ্য়ে। তাই আবার ফিরে এসেছে তাঁরা নিজেদের জায়গায়।

 

  মেডিক্যালের ছোঁওয়া মানিকতলায়, করোনা আক্রান্তের সংস্পর্শে আসায় দমকল কেন্দ্রের ৩২ কর্মী কোয়রান্টিনে

বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্য়া, মেডিক্য়ালে চিকিৎসক ও সংক্রামিত রোগী থেকে কোয়ারেন্টিনে অন্তত আরও ৪৫

করোনা পজিটিভ প্রসূতির সুস্থ সন্তান, খুশির হাওয়া ফুলেশ্বরের হাসপাতালে