Asianet News BanglaAsianet News Bangla

Kalna: প্রেমিকের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ মুহূর্তের ছবি দেখালেন নিজের স্বামীকেই, লজ্জায় আত্মঘাতী যুবক

  অবৈধ সম্পর্কের  ঘনিষ্ঠ ছবি দেখালেন নিজের স্বামীকেই।  জ্জা ঢাকতে শ্বশুর বাড়িতেই গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী স্বামী। মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে কালনাতে।

 

Husband Commited suicide due to his wifes illicit affair in Kalna RTB
Author
Kolkata, First Published Nov 23, 2021, 6:51 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

 অবৈধ সম্পর্কের  ঘনিষ্ঠ ছবি দেখালেন নিজের স্বামীকেই। এখানেই শেষ নয়, প্রেমিকের সঙ্গে বাইকে চড়ে বাড়ি ছাড়া হলেন বরের সামনেই। এরপর আর মেনে নিতে পারেননি বাড়ির কর্তা। লজ্জা ঢাকতে শ্বশুর বাড়িতেই গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী (Suicide Case) স্বামী। মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে কালনাতে (Kalna in East Burdwan)।

পরিবার সূত্রে খবর, বৈবিবাহিক সম্পর্ক থাকা সত্বেও পর পুরুষের সঙ্গে অবৈধ সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন  টুম্পা দে। এদিকে তাঁদের ঘনিষ্ঠ ভাবে লিপ্ত হওয়ারর ছবি দেখান নিজের স্বামীকেই। স্বামীর সামনেই প্রেমিকের সঙ্গে বাইকে চড়ে বাড়ি ছাড়ে ওই টুম্পা। চরম লজ্জা-ঘেন্না-অপমানে সমাজে নিজের লজ্জা ঢাকতে শ্বশুর বাড়িতেই গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী হন স্বামী। ঘটনাটি কালনার স্বাসপুর গ্রামে। মৃতের নাম সুদেব দে। ইতিমধ্যেই তাঁর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্যে কালনা মহকুমা হাসপাতালে পাঠিয়েছে কালনা পুলিশ। উল্লেখ্য,  ১৮ বছর আগে কালনার বাঘনা পাড়ার খাস পুর গ্রামের মেয়ে টুম্পা দে-র সঙ্গে প্রেম ভালোবাসা করে বিয়ে হয় গ্রামেরই এক যুবক সুদেব দে-র। তাঁদের একটি কন্যা সন্তান আছে।

আরও পড়ুন, Tripura: ফিরহাদের বিরুদ্ধে এবার মামলা দায়ের ত্রিপুরায়, কী অভিযোগ বাংলার পরিবহণ মন্ত্রীর বিরুদ্ধে

আরও পড়ুন, Dilip Ghosh-Babul Supriyo: 'বামেরা নয়, প্রকৃত সর্বহারা একজনই, বাবুল সুপ্রিয়', বললেন দিলীপ

কর্মসূত্রে টুম্পার বাবা গ্রাম ছেড়ে কালনা শহর লাগুয়া শ্বাস পুর গ্রামে বসবাস শুরু করেন। এদিকে সুন্দরী  টুম্পার ক্রমশ উচ্চ আখাঙ্কা বাড়তে থাকে।কয়েক কয়েক সপ্তাহের আগে শ্বাসপুর গ্রামের এক যুবকের সঙ্গে পর পর দুইবার পালিয়ে যায়। বুঝিয়ে ফের তাঁকে ঘরে ফিরিয়ে আনেন সুদেব দে। এবং ফের সংসার বাধে টুম্পার সঙ্গেই। কিন্তু টুম্পার মন পড়ে থাকে প্রেমিকের দিকে। এরপরেই ঘটনা মর্মান্তিক দিকে মোড় নেয়। প্রেমিকের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ মুহূর্তের ছবি দেখিয়ে স্বামীকে অপমান করে টুম্পা। এবং  স্বামীর সামনেই প্রেমিকের সঙ্গে তার বাইকে চড়ে ঘর ছাড়েন ওই গৃহবধূ। গ্রামবাসীদের কাছে ভীষণ অপমানিত ও লজ্জায় পড়ে যান সুদেব। সোমবার রাতে সমাজের সামনে নিজের লজ্জা ঢাকতে শ্বশুর বাড়িতেই গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী হয় সুদেব দে।

প্রসঙ্গত, তবে কালনা ঘটনাটি অবশ্যই মর্মান্তিক। যদিও চলতি মাসেই এই পরকীয়ার জেরেই আরও একটি নৃশংস ঘটনা ঘটেছে। ভাঙড়ে পরকীয়া সম্পর্কের জেরে, প্রেমিককে সঙ্গে নিয়ে স্বামীকে খুনের অভিযোগ উঠেছে খোদ স্ত্রীর বিরুদ্ধেই। রোমহর্ষক ঘটনাটি ঘটেছে ভাঙড়ের বামনঘাটা অঞ্চলে কোচপুকুর গ্রামে। স্থানীয় সুত্রের খবর, বছর পয়তাল্লিশের মুসলিমা বিবি প্রেমিক সাইদুল শেখের সঙ্গে পরকীয়া সম্পর্কে জড়িত ছিলেন। স্ত্রীর ওই সম্পর্কের কথা জানতে পেরে প্রতিবাদ করতেন স্বামী আনসুর আলি গাজী । এ নিয়ে দম্পতির মধ্যে মাঝেমধ্যেই অশান্তি হত। পথের কাটা সরাতে স্ত্রী নিজের স্বামী কে খুনের পরিকল্পনা করেন এবং খুন করেন। তদন্তকারীদের দাবি, জেরায় ধৃতেরা জানিয়েছে, পথের কাঁটা সরাতে স্বামী আনসুর আলি গাজীকে সরিয়ে দেওয়ার ছক কষে দু’জনে। রাতে  স্বামীকে ঘুমের ঔষধ খাইয়ে গলা টিপে,বালিশ চাপা দিয়ে খুন করে স্ত্রী মুসলিমা বিবি। তার খুনে সহায়তা করে প্রেমিক।  

আরও দেখুন, বিরিয়ানি থেকে তন্দুরি, রইল কলকাতার সেরা খাবারের ঠিকানার হদিশ  

আরও দেখুন, কলকাতার কাছেই সেরা ৫ ঘুরতে যাওয়ার জায়গা, থাকল ছবি সহ ঠিকানা  

আরও দেখুন, মাছ ধরতে ভালবাসেন, বেরিয়ে পড়ুন কলকাতার কাছেই এই ঠিকানায়  

আরও পড়ুন, ভাইরাসের ভয় নেই তেমন এখানে, ঘুরে আসুন ভুটানে  

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios