শুক্রবার বিশ্ব পরিবেশ দিবস। মুখ্য়মন্ত্রী সবাইকে  টুইটে শুভেচ্ছা বার্তা জানিয়েছেন। একসঙ্গে হাত মিলেয়ে আমফানে ক্ষতিগ্রস্থ বাংলার সবুজায়ন পুনরুদ্ধার করার কথাও বলেছেন। আবার অপরদিকে বিশ্বপরিবেশ দিবসে আমফানে বাংলার ক্ষতির পরিমাণ খতিয়ে দেখতে সফর করছে কেন্দ্রীয় দল। 

আরও পড়ুন, শৌচাগার ব্যবহার নিয়ে ধুন্ধুমার কসবায়, বেধড়ক মারে যুবকের মৃত্যু

বিশ্বপরিবেশ দিবসে টুইট করে মুখ্য়মন্ত্রী মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়ায় সবাইকে শুভেচ্ছা বার্তা জানিয়েছেন। তিনি আরও বলেছেন, 'সবুজ বাঁচাও, জীবন বাঁচাও। ঘূর্ণিঝড় আমফানের জেরে কলকাতা এবং দক্ষিণবঙ্গে অগণিতভাবে পরিবেশের ক্ষতি হয়েছে। ১০০০০ গাছ উপড়ে গিয়েছে। বাংলার সেই সবুজায়ন পুনরুদ্ধার করতে আমাদের সবাইকে একসঙ্গে কাজ করতে হবে।'

 

 

আরও পড়ুন, মেলেনি মার্কিন মুলুকের উড়ান, কলকাতায় আটকে প্রবাসীরা

 আমফানের জেরে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ খতিয়ে দেখতে রাজ্যে এসেছে কেন্দ্রীয় দল। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের যুগ্মসচিব অনুজ শর্মার নেতৃত্বে সাত সদস্যের পর্যবেক্ষক দলটি বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় কলকাতা এসে পৌঁছয়। রাজ্য প্রশাসন সূত্রে খবর,  শুক্রবার সকালে ৪ টি দলে ভাগ হয়ে উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনার আমফান-বিধ্বস্ত এলাকাগুলি পরিদর্শন করবেন পর্যবেক্ষকেরা। ইতিমধ্য়েই উত্তর ২৪ পরগনা, সন্দেশখালীতে পৌছে গিয়েছেন কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দল। শনিবার নবান্নে রাজ্যের মুখ্যসচিব রাজীব সিংহের সঙ্গে এনিয়ে বৈঠক করার কথা তাঁদের। উল্লেখ্য়, আমফানের পরেই বাংলার পরিস্থিতি খতিয়ে দেখে অগ্রিম ১০০০ কোটি টাকার ক্ষতিপূরণ ঘোষণা করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী। অবশ্য় সেই অর্থ রাজ্য পেয়ে গিয়েছে। রাজ্যের মত, প্রধানমন্ত্রী ঘুরে যাওয়ার পর পরই কেন্দ্রীয় দল এলে ভাল হত। আগে এলে ক্ষতিগ্রস্থ এলাকাগুলি আরও স্পষ্ট ভাবে বোঝা সম্ভব হত। 

 

 

 পিটিএসে নতুন করে আক্রান্ত আরও ৮, করোনা মুক্ত হয়ে কাজে ফিরলেন ১০০ পুলিশ কর্মী

বাংলাদেশ ফেরৎ ২ যাত্রী করোনা পজিটিভ, কোয়ারান্টিনের পর আক্রান্ত হওয়ায় চিন্তায় স্বাস্থ্য দফতর

 কলকাতা মেডিক্যালের ছাদের কার্নিশে বসে করোনা রোগী, সামলাতে গিয়ে নাজেহাল কর্তৃপক্ষ

করোনা মোকাবিলায় বড়সড় উদ্য়োগ, পরিষেবা বাড়াতে ৫০০ ডাক্তার-নার্স নিচ্ছে রাজ্য

দেহ রাখার জায়গা না থাকায় ডিপ ফ্রিজ বসছে মেডিকেলের মর্গে, মৃতদেহ 'ম্যানেজমেন্ট'-এ নিয়োগ অ্যাসিস্ট্যান্ট