Asianet News Bangla

মুর্শিদাবাদে আন্তর্জাতিক মাদক সিন্ডিকেট চক্রের পর্দা ফাঁস করল CID, ধৃত পাচারকারী

মায়ানমার,থাইল্যান্ডের আন্তর্জাতিক মাদক সিন্ডিকেট চক্রের পর্দা ফাঁস করল সিআইডি।  প্রায় ৫০ লাখ টাকার অধিক আমদানি করা প্রতি উন্নত মানের ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়েছে।
 

CID arrests international drug trafficker from Murshidabad RTB
Author
Kolkata, First Published Jul 12, 2021, 5:49 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

সিআইডির জালে মায়ানমার,থাইল্যান্ডের আন্তর্জাতিক মাদক সিন্ডিকেটের লিংক। মুর্শিদাবাদে ৫০ লাখের মাদকসহ গ্রেপ্তার পাচারকারী।দীর্ঘদিন ধরেই সোর্স ইনপুট এসে এসে পৌঁছাছিল সিআইডি গোয়েন্দাদের কাছে। তারপরেই মিসিং লিঙ্ক খুঁজে পেতে মাঠে নেমে পড়েন সিআইডি আধিকারিকেরা। রীতিমতো পরিকল্পনা করে মুর্শিদাবাদে হানা দেন তারা। আর তাতেই বাজিমাত। 

আরও পড়ুন, PAC-র চেয়ারম্যান মুকুল কেন, বিধানসভায় সমস্ত পদ ছাড়ছে BJP, মঙ্গলে রাজভবনে শুভেন্দু


সোমবার হদিস মেলে সুদূর মায়ানমার থাইল্যান্ডের আন্তর্জাতিক মাদক সিন্ডিকেটের।  জেলা পুলিশের ইন্টেলিজেন্সের কর্তাদের সঙ্গে নিয়ে মুর্শিদাবাদের সদর শহরে অবস্থিত রামেন্দ্রসুন্দর সেতুর ওপর পুরোপুরি  ফাঁদ পেতে বসে ঐ সিআইডি আধিকারিকের কর্তারা। সেখানেই ভিনদেশ মায়ানমার, থাইল্যান্ড থেকে প্রায় ৫০ লাখ টাকার অধিক আমদানি করা প্রতি উন্নত মানের ইয়াবা ট্যাবলেট সহ এক পাচারকারী পান্ডা জেলা পুলিশ ও সিআইডি হাতে গ্রেফতার হয়। তারপরেই শুরু হয়েছে ওই পাচারকারীকে একের পর এক ম্যারাথন জোড়া। বিশেষ সূত্র মারফত জানা যায়,তাকে জেরা করে সিআইডির আধিকারিকরা জানতে পারে ধৃত ঐ পাচারকারীর নাম হাসিবুল শেখ। তার বাড়ি মুর্শিদাবাদের কীর্তনীয়াপাড়া এলাকায়। তার কাছে দেহের বিভিন্ন অংশ থেকে শুরু করে ব্যাগের মধ্যে থেকে লুকানো অবস্থায়  সাত হাজার ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার হয়। 

আরও পড়ুন, 'সারদাকর্তা সুদীপ্ত সেনের থেকে ৮০ কোটি টাকা নিয়েছিলেন মুকুল রায়', বিস্ফোরক মনোজ

 

 

সিআইডি দপ্তরের আধিকারিকেরা গোপন সূত্রে খবর পেয়ে,  কলকাতা থেকে মুর্শিদাবাদে এসে পৌঁছয়।তারপর জেলা পুলিশের সাথে যৌথ অভিযান করার ব্লুপ্রিন্ট বানায়। সেইমতো রামেন্দ্রসুন্দর সেতুর কাছে সিআইডির দলটি অপেক্ষা করতে থাকে। তারা দূর থেকে দেখতে পায় বিপুল ৫০লাখ টাকার অধীক মাদকসহ সেতুর ওপর দিয়ে এগিয়ে আসতে থাকে ঐ পাচারকারী। সুযোগ বুঝে তাকে চারদিক থেকে ঘিরে গ্রেপ্তার করা হয়। তারপরে তল্লাশি চালিয়ে তার কাছ থেকে ৭০০০ মাদক ট্যাবলেট উদ্ধার হয়। এখানেই শেষ নয়, ধৃত যুবক সেই ট্যাবলেট  আর একজনের কাছে পৌঁছে দেওয়ার পরিকল্পনা করেছিল। সেখান থেকে তা বাংলাদেশে পাঠানো হতো।এমনটাই প্রাথমিক জেলায় সে সিআইডি আধিকারিকদের জানায়। 

আরও পড়ুন, নিজের ব্যর্থতা ঢাকতে হর্ষবর্ধনকে এ কী করলেন মোদী, ফাঁস করতে তোপ অধীরের

এদিকে জেলা ইন্টেলিজেন্স মারফত জানা গিয়েছে, তিন ধরনের ইয়াবা ট্যাবলেট রয়েছে। হালকা গোলাপি বা লাল রংয়ের ইয়াবার চাহিদা বেশি। এই ট্যাবলেট পাচাকারীদের কাছে চম্পা, জিপি,  সহ বিভিন্ন নামে পরিচিত।  এই মাদক ট্যাবলেট বহু বছর ধরেই মুর্শিদাবাদে আসছে। এবার আন্তর্জাতিক মাদক সিন্ডিকেটের লিংক পেলেও সিআইডি কর্তারা। যা থেকে আরো বড় রাঘববোয়ালদের গ্রেপ্তার হওয়ার সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে।

 

আরও পড়ুন, ভরা বর্ষায় সর্ষে ইলিশ, সঙ্গে ২-৩ দিনের সফর, নয়া ভাবনায় 'হিলশা ট্যুরিজম'

আরও পড়ুন, ভাইরাসের ভয় নেই তেমন এখানে, ঘুরে আসুন ভুটানে  

আরও দেখুন, মাছ ধরতে ভালবাসেন, বেরিয়ে পড়ুন কলকাতার কাছেই এই ঠিকানায়  

আরও পড়ুন, রাজ্য়ের সর্বনিম্ন সংক্রমণ এই জেলায়, বৃষ্টিতে হারাতেই পারেন পুরুলিয়ার পাহাড়ে

আরও দেখুন, বৃষ্টিতে বিরিয়ানি থেকে তন্দুরি, রইল কলকাতার সেরা খাবারের ঠিকানার হদিশ  

আরও দেখুন, কলকাতার কাছেই সেরা ৫ ঘুরতে যাওয়ার জায়গা, থাকল ছবি সহ ঠিকানা 

আরও পড়ুন, বনগাঁ লোকাল নয়, জাপানে ঠেলা মেরে ট্রেনে তোলে প্রোফেশনাল পুশার, রইল পৃথিবীর আজব কাজের হদিস 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios