Asianet News BanglaAsianet News Bangla

Crime 'মুখে জলের পাইপ ঢুকিয়ে' থানায় গ্যারেজ মালিককে বেধড়ক মার, তদন্তের নির্দেশ পুলিশ সুপারের


অভিযোগের ভিত্তিতে থানায় তুলে এনে রাস্তার পাশের এক গ্যারেজ মালিককে বেধড়ক মারের অভিযোগ। পেটানোর অভিযোগে ঘটনায়  ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ালো মুর্শিদাবাদের সুতি এলাকায়। ঘটনার উচ্চপর্যায়ে তদন্তের নির্দেশ দেন  মুর্শিদাবাদের জঙ্গিপুরের পুলিশ সুপার। ওই যুবকের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায়  মুর্শিদাবাদ হাসপাতালে তার চিকিৎসা চলছে।  

The district superintendent of police has directed to investigate the incident of beating the garage owner RTB
Author
Kolkata, First Published Oct 1, 2021, 6:52 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp


অভিযোগের ভিত্তিতে থানায় তুলে এনে রাস্তার পাশের এক গ্যারেজ মালিককে বেধড়ক পেটানোর অভিযোগে ঘটনায়  ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ালো মুর্শিদাবাদের (Murshidabad) সুতি এলাকায়। শুক্রবার শেষ পাওয়া খবরে জানা যায়, ঘটনার উচ্চপর্যায়ে তদন্তের নির্দেশ দেন  মুর্শিদাবাদের জঙ্গিপুরের পুলিশ সুপার (District Police Super) ওয়াই রঘুবংশী।

আরও পড়ুন, Sarsuna Shootout: মদ্যপ অবস্থায় ছেলেকে গুলিবিদ্ধ করলেন বাবা, আটক প্রাক্তন সেনা আধিকারিক

সাজাহান শেখ নামে ওই যুবকের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায়  বহরমপুরে মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে তার চিকিৎসা চলছে। নিগৃহীত সাজাহানের মা রঙ্গিলা বেওয়ার অভিযোগ, 'অভিযোগের ভিত্তিতে অন্যায় ভাবে ছেলেকে তুলে নিয়ে গিয়ে পুলিশের বেধড়ক মারে ডান পায়ের হাড় ভেঙে গুঁড়িয়ে গিয়েছে অবস্থা সংকটজনক। বিচার চেয়ে হাই কোর্টের দ্বারস্থ হব।' সূত্র মারফত জানা যায়, বাইক চালক সোলেমান শেখ নামের এক ব্যক্তি  সাজাহানদের গ্যারাজে বাইক নিয়ে আসে টায়ার সারাতে। সারানোর পরে বাইক নিয়ে চলে যান সোলেমান শেখ নামে ওই বাইক মালিক। পরে আচমকা সোলেমান শেখ শাজাহানের গ্যারেজে এসে দাবি করেন, তাঁর বাইকে ১ লক্ষ ৬৩ হাজার টাকা ছিল, সে টাকা চুরি গিয়েছে। এই টাকা গ্যারেজ মালিক ও তার কনিকা চুরি করেছে বলে অভিযোগ করে। স্বাভাবিকভাবে যাবতীয় অভিযোগ অস্বীকার করে শাজাহান। এর পরেই সোলেমান থানায় গিয়ে শাজাহান অন্যের নামে চুরির লিখিত অভিযোগ দায়ের করে।অভিযোগ, এরপরে গ্যারাজ থেকে সাজাহানকে সুতি থানায় তুলে নিয়ে যান বিশাল পুলিশবাহিনী।

আরও পড়ুন, Shootout: দক্ষিণ দিনাজপুরে বচসার জেরে ব্যবসায়ীর উপর গুলিবর্ষণ, ঘটনাস্থলে বিশাল পুলিশবাহিনী

শাহজাহান এদিন চাঞ্চল্যকর অভিযোগ করে বলেন,'আমাকে বড়বাবুর ঘরে হাত পিছমোড়া করে বেঁধে উবু করে মেঝেতে শুইয়ে দিয়ে মুখে পাইপ লাগিয়ে দিয়ে জল ঢোকাতে শুরু করে পুলিশ কর্মীরা। এর পর সকলে মিলে পিঠে ও পায়ের উপর জুতো পরে লাফাতে শুরু করে।' এরপরেে অবস্থা সংকটজনক হয়ে গেলে শাজাহান কে প্রথমে উদ্ধাার করে মহেশাইল স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভর্তি করা হয়।সেখান থেকে জঙ্গিপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে রেফার করা হয়। এরপরে বাজারের অবস্থা আরও সংকটজনক হলে তাকে মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আনা হয়েছে। যদিও এই ঘটনায় মুখে কুলুপ এঁটেছে সুতি থানা কর্তৃপক্ষ। জেলার উচ্চ পুলিশ আধিকারিক বলেন,'পুরো ঘটনার তদন্ত করার পর যথোপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।'

      আরও পড়ুন, ভাইরাসের ভয় নেই তেমন এখানে, ঘুরে আসুন ভুটানে  

আরও দেখুন, মাছ ধরতে ভালবাসেন, বেরিয়ে পড়ুন কলকাতার কাছেই এই ঠিকানায়  

আরও দেখুন, বৃষ্টিতে বিরিয়ানি থেকে তন্দুরি, রইল কলকাতার সেরা খাবারের ঠিকানার হদিশ  

আরও দেখুন, কলকাতার কাছেই সেরা ৫ ঘুরতে যাওয়ার জায়গা, থাকল ছবি সহ ঠিকানা  

 

 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios