ফের আইপিএলের সূচি পরিবর্তন নিয়ে জল্পনা। সরকারি ঘোষণা না হলেও, আইপিএলের গভর্নিং কাউন্সিলের চেয়ারম্যান ব্রিজেশ প্যাটেল আইপিএলের শুরু ও শেষের দিন জানিয়ে দিয়েছিলেন। তার কথা মত, এবছরের আইপিএল শুরু হবে ১৯ সেপ্টেম্বর ও শেষ হবে ৮ নভেম্বর। যদিও চূড়ান্ত ঘোষণা রবিরা গভর্নিং কাউন্সিলরের বৈঠকের পরই হবে বলে জানানো হয়েছিল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের তরফে। তবে এবার শোনা যাচ্ছে পরিবর্তিত হতে পারে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের ২০২০ মরসুমের মেগা ফাইনালের দিন।

আরও পড়ুনঃনো বলের ক্ষেত্রে সম্পূর্ণ নতুন নিয়ম আইসিসির, শুরু আজ থেকে

বোর্ড সূত্রে খবর,৮ নভেম্বরের পরিবর্তে ১০ নভেম্বর হতে পারে আইপিএলের ফাইনাল। কারণ সম্প্রচারকারী সংস্থা প্রথম থেকে দীপবলীর সপ্তাহ পর্যন্ত আইপিএলকে দীর্ঘায়িত করা কথা ভারতীয় বোর্ডের কাছে বলে আসছিল। ব্যবসায়ীক দিকের কথা মাথায় রেখেইব তারা এমন দাবি জানাচ্ছিল। ১৪ নভেম্বর দীপাবলী। ফলে দীপবলী না হলেও, ওই সপ্তাহতেই ফাইনাল করার দাবি জানিয়েছে তারা। সেকারণেই সম্ভবত ১০ নভেম্বর হতে পারে ফাইনাল। শুরুতে ২৬ সেপ্টেম্বর থেকে আইপিএল শুরু হওয়ার কথা ছিল। সেক্ষেত্রে ৪৪ দিনের উইন্ডো ব্যবহার করার পরিকল্পনা ছিল বোর্ডের। ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগ এক সপ্তাহ এগিয়ে আনায় টুর্নামেন্ট পরিণত হয় ৫১ দিনের। এবার ফাইনাল যদি আরও ২ দিন পিছিয়ে দেওয়া হয়, তবে ৫৩ দিনের আইপিএল অনুষ্ঠিত হবে এবার।

আরও পড়ুনঃরাফাল যুদ্ধবিমানকে দেশে স্বাগত জানালেন ভারতীয় ক্রিকেটাররা

আরও পড়ুনঃঘুমের মধ্যে পাবজি গেম নিয়ে কথা বলেন ধোনি, জানালেন সাক্ষী

শুধু আইপিএলের দিন বাড়া নয়, আইপিএলের ইতিহাসে প্রথাও ভাঙতে চলেছে ২০২০ মরসুমের আইপিএল। কারণ এতদিন পর্যন্ত আইপিএল ফাইনাল হয়ে এসেছে সপ্তাহ শেষে রবিবার ছুটির দিন। এবার যদি ১০ নভেম্বর ফাইনাল হয়, তাহলে প্রথমবার বুধবার হবে আইপিএল ফাইনাল। যদিও দীপাবলীর সপ্তাহ, ছুটি থাকে বলে টিআরপিতে কোনও সমস্যা হবে না বলেই মনে করছে সম্প্রচারকারী সংস্থা থেকে বিসিসিআই কর্তারা। কিন্তু আইপিএল ফাইনাল পিছিয়ে গেলে অস্ট্রেলিয়া সফরগানী ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্লেয়ারদের আর দেশে ফেরা হবে না। তারা আরব আমিরশাহি থেকই সরাসরি অস্ট্রেলিয়ার প্লেনে উঠবেন। যদিও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত এখনও কোনও কিছুই হয়নি। সবকিছুর জন্য অপেক্ষা করতে হবে রবিবার গভর্নিং কাউন্সিলরে বৈঠক পর্যন্ত।