কোভিড পজিটিভ হয়ে মারা গেলেন প্রখ্যাত ইতিহাসবিদ হরিশঙ্কর বাসুদেবন। বাষট্টি বছর বয়সি কলকাতা বিশ্ববিদ্য়ালয়ের প্রাক্তন ওই অধ্য়াপক শনিবার গভীর রাতে প্রাণ হারিয়েছেন। তিনি করোনা আক্রান্ত ভর্তি ছিলেন সল্টলেকের একটি বেসরকারি হাসপাতালে। তবে তাঁর মৃত্য়ু করোনা সংক্রমণের জন্য়ই হয়েছে কিনা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছে রাজ্য় সরকার।

আরও পড়ুন, ঝড়-বৃষ্টি সঙ্গেই লাফিয়ে চড়ছে পারদ, আগামী ২৪ ঘণ্টায় কালবৈশাখীর সম্ভাবনা কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গে

সল্টলেকের সি ডি ব্লকের বাসিন্দা এই ইতিহাসবিদ চলতি মাসের শুরুতে জ্বরে আক্রান্ত হন। ৪ তারিখ তাঁকে ভর্তি করা হয় সল্টলেকের আমরি হাসপাতালে। ৬ তারিখ তাঁর করোনা রিপোর্ট পজিটিভ আসে। পরের দিন থেকে প্রবল শ্বাসকষ্ট শুরু হওয়ায় তাঁকে ভেন্টিলেশনে রাখা হয়। কিন্তু শেষ রক্ষা হল না। শনিবার রাত ১ টা নাগাদ তাঁর মৃ্ত্যু হয়েছে। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, তিনি অন্যান্য আরও ক্রনিক অসুখেও আক্রান্ত ছিলেন। পাশপাশি কোভিড-১৯ পজিটিভ রিপোর্ট আসার পরেই হরি বাসুদেবানের সল্টলেকের বাড়ির আশপাশ এলাকা সিল করে দিয়েছে বিধাননগর থানার পুলিশ। ইতিহাসবিদের পরিবারের পাঁচ সদস্যকে হোম-কোয়ারানটিনে পাঠানো হয়েছে।

আরও পড়ুন, কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয় খুলতেই ১ মাসের মধ্যে ফাইনাল সেমিস্টার, স্বাস্থ্য়বিধি মেনেই পরীক্ষা হোম সেন্টারে
 
প্রসঙ্গত কেমব্রিজের ক্রাইস্টস কলেজ থেকে স্নাতক হওয়ার পরে কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে  তিনি স্নাতকোত্তর ও পিএইচডি করেন। তাঁর গবেষণার বিষয় ছিল ভারত ও ইউরোপের গণতন্ত্র এবং উন্নয়ন, রুশ-ভারত সম্পর্ক এবং সমসাময়িক বিশ্বরাজনীতি। বিদেশে উচ্চশিক্ষাপর্ব শেষ করে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় দীর্ঘদিন ধরে তিনি আধুনিক ইতিহাস পড়াতেন। এছাড়াও কেন্দ্রীয় সংস্থা কলকাতার মৌলানা আবুল কালাম আজাদ ইনস্টিটিউট অফ এশিয়ান স্টাডিজের তিনি অধিকর্তা পদে ছিলেন। দিল্লির জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়া-সহ ভারতের বহু নামী প্রতিষ্ঠানে  তিনি দীর্ঘ দিন শিক্ষকতা করেছেন। আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন এই ইতিহাসবিদের একাধিক বই প্রকাশিত হয়েছে। ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অব হিস্টোরিক্যাল রিসার্চ-এর প্রাক্তন সদস্য এই ইতিহাসবিদের প্রয়াণে শোকের ছায়া তাঁর গুণমুগ্ধদের মধ্যে।

 

 

'যোদ্ধারা সমরে-করোনা দূরে', ফের সচেতনতামূলক পথচিত্র আঁকল বেলেঘাটা ৩৩ পল্লী

বেহালা হাসপাতালের প্রসুতির শরীরে মিলল এবার করোনার জীবাণু, কেপিসি-র ৩ রোগীর রিপোর্টও পজিটিভ

রোগী ফেলে পালাতে পারল না অ্যাম্বুল্যান্স, পিপিই পরা স্বাস্থ্য়কর্মীদেরকে তীব্র প্রতিবাদ নাকতলাবাসীর