আজ ইদুজ্জোহা। এদিকে করোনা পরিস্থিতিতে বকরি ইদ উপলক্ষে নমাজের জন্য শহর এবং রাজ্যের মসজিদগুলিতে একাধিক বিষয়ে নিষাধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। একই সঙ্গে মাস দুয়েক আগে ইদের মতো বাড়িতে থেকেই ইদুজ্জোহা পালন করার আবেদন জানিয়েছেন রাজ্যের মুসলিম ধর্মগুরুরা। তবে এবার সংক্রমণ এড়াতে পুর প্রশাসক ফিরহাদ হাকিমও বাড়িতেই নমাজ পড়লেন। এবং সবাই জানালেন 'ইদ মোবারক'।

আরও পড়ুন, শহরে সংক্রমণে-লকডাউনে লাফিয়ে বাড়ছে অভিযোগও, কী বললেন যুগ্ম কমিশনার


ফিরহাদ হাকিম জানিয়েছেন, ' ইদে এবং বকরি ইদে করোনা পরিস্থিতির জন্য মানুষ বাড়িতেই নমাজ পড়ল। এই  ইদুজ্জোহার পরে কোরবানি হয়, এবার সেটাও খুব সীমিতভাবে হয়েছে। যেরকম আমাদের বাড়িতে হয়, এবার তা হয়নি।  তার কারণ এত মানুষ করোনা আক্রান্ত এবং চারিদিকে একটা ভয়ের পরিবেশ। সেখানে মন খুলে কোনও উৎসবই পালন করা যাচ্ছে না। সেই পরিপ্রেক্ষিতে আমরাও বাড়িতে নমাজ পড়লাম। কিন্তু রীতির নিয়মগুলি তো পালন করতে হবে সেটাই ছোট আকারে হচ্ছে। ইদেও তাই হয়েছে এবং এবারও তাই হল। খুব ছোট আকারেই আমরা পালন করলাম। এবার করোনা পরিস্থিতিতে আলিঙ্গনটা করা যাচ্ছে না। সাধারণ এই আল্লার কাছে সব মানুষের জন্য সারা বিশ্বের জন্য শুভ কামনা করা হয়।' যদিও এরপর খুশির আমেজেই সবাইকে 'ইদ মোবারক' জানালেন পুর প্রশাসক ফিরহাদ হাকিম।

আরও পড়ুন, সপ্তাহ পেরোতেই করোনায় মৃত্যু কলকাতা পুলিশের আরও এক আধিকারিকের, শোকের ছায়া চিৎপুরে

অপরদিকে, করোনা রুখতে চলতি বছরে রেড রোডে ইদুজ্জোহার নমাজও বাতিল করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন কলকাতা খিলাফত কমিটির সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ মহম্মদ সইদ। নাখোদা মসজিদে নমাজ পালিত হলেও দুটি জমাত  একটি শনিবার সকাল সাড়ে ৬ টায় হয়ে গিয়েছে এবং অন্যটি সাড়ে ৭ টায় হবে বলে আগাম জানানো হয়েছে। ওই মসজিদের ইমাম শফিক কাশেমি বলেন, 'কোভিড পরিস্থিতিতে রাজ্য সরকারের বিধি মেনে মসজিদে নমাজ হবে। সকলকে অনুরোধ, মসজিদে ভিড় করবেন না। শিশু এবং বয়স্করা বাড়িতে থেকেই নমাজ আদায় করুন।'মসজিদে যাতে দূরত্ব-বিধি মেনে সকলে নমাজ পড়েন, সেই আর্জিও জানিয়েছেন কাশেমি সাহেব। ধর্মতলার টিপু সুলতান মসজিদের তরফে হাফিজ হারুন রশিদ বলেন, 'ইদুজ্জোহার নমাজে একসঙ্গে ২৫ জনের বেশি ঢুকতে দেওয়া হবে না। নমাজ পড়ার সময়ে মাস্ক পরতেই হবে।'  রাজ্য ওয়াকফ বোর্ডের চেয়ারম্যান, কলকাতা হাইকোর্টের প্রাক্তন বিচারপতি আব্দুল গনি জানিয়েছেন, মসজিদগুলিতে যাতে ভিড় এড়িয়ে নমাজ পড়া হয়, তার জন্য রাজ্যের প্রায় ৬০ হাজার মসজিদে নোটিস পাঠানো হয়েছে।

 

 

করোনায় ফের ১ এসবিআই কর্মীর মৃত্য়ু, মৃতের পরিবারকে চাকরি দেওযার দাবিতে ব্যাঙ্ক কর্মীরা

   পূর্ব ভারতের প্রথম সরকারি প্লাজমা ব্যাঙ্ক-কলকাতা মেডিকেল, করোনা রুখতে প্রস্তুতি তুঙ্গে

  মৃত্যুর পর ২ দিন বাড়ির ফ্রিজে করোনা দেহ, অভিযোগ 'সাহায্য মেলেনি স্বাস্থ্য দফতর-পুরসভার'

  অঙ্গপ্রত্যঙ্গ বিকলের পরও কোভিড জয়ী ৫৪-র দুধ ব্যবসায়ী, শহরকে দিলেন এক সমুদ্র আত্মবিশ্বাস

কোভিড রোগী ফেরালেই লাইসেন্স বাতিল, হাসপাতালগুলিকে হুঁশিয়ারি রাজ্য়ের