আনলক-ওয়ানের পর বিমানের সংখ্য়া এখনও কম কলকাতায়। তবে শুধু কলকাতাতেই নয় গোটা পূর্ব ভারতেই একই অবস্থা। স্বভাবতই, বিমান পরিষেবা চালু হলেও চাহিদা না থাকায় সে ভাবে বিমান ওঠা-নামা করতে দেখা গেল না পূর্ব ভারতের বিমানবন্দরগুলিতে। যার দরুণ ক্ষতির পরিমাণ বাড়ছে।

আরও পড়ুন, বজ্রগর্ভ মেঘপুঞ্জ থেকেই বৃষ্টি, ভাসল কলকাতা সহ গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের বিস্তীর্ণ এলাকা


 করোনা আবহে এবার উড়ান পরিষেবায় ধাক্কা। পূর্বাঞ্চলে, বিশেষ করে কলকাতায় তার প্রভাব দিনে দিনে বাড়ছে। ফলে বাড়ছে ক্ষতির পরিমাণ। আনলক ওয়ানে কলকাতা থেকে উড়ান চালাতে গিয়ে এখন ক্ষতির মুখে বেশ কয়েকটি বিমান সংস্থা। অন্তর্দেশীয় পরিষেবায় কলকাতা থেকে সবচেয়ে বেশি বিমান চালায় স্পাইস জেট ও ইন্ডিগো। এই দুটি সংস্থা এখন বিপুল আর্থিক ক্ষতির মুখে। এই পরিস্থিতিতে ১২৩ কোটি টাকা লোকশান করে এবার ভারত থেকে ব্যবসা গোটানোর ইঙ্গিত মালয়েশিয়ার উড়ান সংস্থা এয়ার এশিয়ার। দীর্ঘ লকডাউন কাটিয়ে গত ২৮ মে থেকে কলকাতায় চালু হয়েছে অন্তর্দেশীয় উড়ান। প্রথমে দশটি উড়ান দিয়ে চালু হয় পরিষেবা। ধীরে ধীরে সংখ্যা বাড়ানো হয়। প্রতিদিন কলকাতা থেকে উড়ানের সংখ্যা ৬১। তুলনায় অনেক এগিয়ে দিল্লি ও মুম্বই। দিল্লির সংখ্যা ১৪০। আর মুম্বই থেকে ১৫০। উড়ান বাতিলের নিরিখে বাকি দুটি জায়গার থেকে কলকাতার সংখ্যা বেশি। এই পরিস্থিতিতে চিন্তায় পড়েছে বিমান সংস্থা এবং এই শিল্পের সঙ্গে যুক্ত বিভিন্ন অনুসারী শিল্প সংস্থাগুলি। 

আরও পড়ুন, লকডাউনে সবদিক থেকে কলকাতা কতটা এগিয়ে, টিআরএ রিসার্সে উঠে এল ১৬ শহরের রিপোর্ট


অপরদিকে, এই পরিস্থিতিতে উদ্বেগ বাড়াছে মালয়েশিয়ার বিমান সংস্থা এয়ার এশিয়ার ব্যবসা গোটানোর ইঙ্গিত। টাটার হাত ধরে সাত বছর আগে সস্তার উড়ান পরিষেবা দিতে প্রথম ভারতে এসেছিল এয়ার এশিয়া।  করোনা  আবহে দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ার বাকি জায়গায় পরিষেবা চালু রাখলেও, জাপান ও ভারতে ব্যবসা বন্ধের কথা ভাবছে সংস্থা। ইতিমধ্যেই তাদের ক্ষতির পরিমাণ ১২৩ কোটি টাকা।
 

 

কোভিড রোগী ফেরালেই লাইসেন্স বাতিল, হাসপাতালগুলিকে হুঁশিয়ারি রাজ্য়ের

 কলকাতায় একদিনে চিহ্নিত প্রায় ২০০ বাড়ি, কনটেইনমেন্ট জোন বৃদ্ধির কারণ বললেন মুখ্যসচিব

 করোনা আক্রান্ত নিজাম প্যালেসের এক সিবিআই আধিকারিক, স্যানিটাইজ করা হল পুরো অফিস

করোনা আবহে সুরজিৎ কর পুরকায়স্থের প্রাক্তন স্ত্রী-শাশুড়ির দেহ উদ্ধার, তদন্তে পুলিশ

দেহ রাখার জায়গা না থাকায় ডিপ ফ্রিজ বসছে মেডিকেলের মর্গে, মৃতদেহ 'ম্যানেজমেন্ট'-এ নিয়োগ অ্যাসি