করোনা আবহের মধ্য়েই নতুন সঙ্কটে রাজ্যের স্বাস্থ্য পরিষেবা। সূত্রের খবর, রাজ্যের বিভিন্ন হাসপাতালে কর্মরত ভিন্ রাজ্যের আরও ১৬৯ জন নার্স বাড়ি ফিরে গিয়েছেন। যার জেরে স্বাস্থ্য পরিষেবা নিয়ে বড়সড় সঙ্কটের মুখে কলকাতার একাধিক বেসরকারি হাসপাতাল।

আরও পড়ুন, শক্তি বাড়িয়ে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় 'আমফান', এদিকে ফের পারদ চড়ল কলকাতায়
 
ভিন্‌ রাজ্যের নার্সদের রাজ্য ছাড়ার সংখ্যা কার্যত দ্বিগুণ হল শনিবার।  এ নিয়ে মুখ্যসচিবকে চিঠি দিয়ে 'অ্যাসোসিয়েশন অব হসপিটালস ইন ইস্টার্ন ইন্ডিয়া'  বলেছে, মণিপুর সরকার নার্সদের ফেরার জন্য আকর্ষণীয় স্টাইপেন্ড দিচ্ছে। কেরল, ত্রিপুরা, ওড়িশার নার্সরাও ফিরতে পারেন বলে তাদের আশঙ্কা। এ বিষয়ে মুখ্যমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ চেয়েছে সংগঠন। নার্সিং কাউন্সিল অব ইন্ডিয়াকেও চিঠি দেওয়ার কথা ভাবছে তারা। উল্লেখ্য়, শুক্রবার বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতালে কর্মরত মণিপুরের ১৮৫ জন নার্স ফিরে যাওয়ার বিষয়টি সামনে আসে। এ দিন ফিরে যাওয়া নার্সদের মধ্যেও ৯২ জন মণিপুরের। বাকিদের মধ্যে ত্রিপুরার ৪৩, ওড়িশার ৩২ এবং ঝাড়খণ্ডের ২ জন রয়েছেন। 

আরও পড়ুন, ভাড়া বাড়ানোর দাবি মানল না রাজ্য, বেসরকারি বাস-মিনিবাসের চালু হওয়ার আপাতত কোনও সম্ভাবনা নেই


তিন দিনে আমরি গ্রুপের ৩টি হাসপাতাল থেকে ৮৩ জন নার্স কাজ ছেড়ে গিয়েছেন। আমরি গ্রুপের সিইও রূপক বড়ুয়া জানিয়েছেন, ভিন্‌ রাজ্যের নার্সরা যাতে কাজ না-ছাড়েন তার কাউন্সেলিং হচ্ছে। তবে সরকারি সাহায্য ছাড়া সমাধান মুশকিল। অপরদিকে দুইসপ্তাহ পরিষেবা বন্ধ থাকার পর সোমবার ফের পরিষেবা চালু করতে চলেছে পিয়ারলেস হাসপাতাল। হাসপাতালের সিইও সুদীপ্ত মিত্র বলেছেন, ' আপাতত রোগী কম থাকায় পরিষেবায় দিতে অসুবিধা হচ্ছে না। রোগী বাড়লে পরিস্থিতি জটিল হবে।' প্রশাসন সূত্রে খবর, কলকাতায় মোট কত জন নার্স কাজ করেন, তাঁদের কত জন ভিন রাজ্যের, কত জন কাজ ছেড়ে গিয়েছেন, বিস্তারিত তথ্য জানতে চেয়ে বেসরকারি হাসপাতালগুলিকে চিঠি দিয়েছে স্বাস্থ্য দফতর। 

 

 

কোভিড হাসপাতালে স্বাভাবিক মৃত্য়ুতেও পরিবার চাইলে সৎকার করবে কলকাতা পৌরসভা, জানালেন ফিরহাদ

করোনা আক্রান্ত প্রাণ হারালেন এবার রাজ্যের এক আইনজীবী, এদিকে আইসোলেশনে তাঁর স্ত্রী

কোভিড পজিটিভ হয়ে মৃত্য়ু প্রখ্যাত ইতিহাসবিদ হরিশঙ্কর বাসুদেবনের

 বেহালা হাসপাতালের প্রসুতির শরীরে মিলল এবার করোনার জীবাণু, কেপিসি-র ৩ রোগীর রিপোর্টও পজিটিভ

রোগী ফেলে পালাতে পারল না অ্যাম্বুল্যান্স, পিপিই পরা স্বাস্থ্য়কর্মীদেরকে তীব্র প্রতিবাদ নাকতলাবাসীর